মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতিরোধে আইন করতে নোটিশ

মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতিরোধে আইন প্রণয়নের জন্য সরকারকে লিগ্যাল নোটিশ প্রদান করেছে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের সভাপতি হাইকোর্টের সিনিয়র আইনজীবী অ্যাডভোকেট মশিউর মালেক।

মঙ্গলবার বাংলাদেশ সরকারের পক্ষে আইন সচিব ও আইন কমিশনের চেয়ারম্যানকে ইংরেজি ভাষায় তিন পৃষ্ঠায় কম্পিউটারে কম্পোজকৃত এই নোটিশ প্রদান করা হয়েছে।

লিগ্যাল নোটিশে স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস সম্পর্কে আলোকপাত করা হয়েছে। নোটিশে বলা হয়, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনকের হত্যার পর স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতির প্রবনতা শুরু হয় এবং তা এখনও চলমান।

স্বাধীনতায় অবিশ্বাসী ও ষড়যন্ত্রকারীরা বক্তৃতা, বিবৃতি, টকশো, পত্রিকা, রেডিও, টিভি, প্রবন্ধ ও গ্রন্থ রচনা এমনকি শ্রেণীকক্ষে এই বিকৃতি চালিয়ে যাচ্ছে বলে নোটিশে উল্লেখ করা হয়েছে।

লি্গ্যাল নোটিশে আরো বলা হয়, ইতিহাস বিকৃতির ওই ধারাবাহিকতায় তারেক রহমান ‘জিয়াউর রহমান বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি’ নামে এবং একে খন্দকার ‘১৯৭১-ভিতরে বাইরে’ নামে বই লিখেছেন।

নোটিশদাতার উল্লেখ করেন, ওই ইতিহাস বিকৃতি রোধে সরকার কোনো আইনী পদক্ষেপ নেয়নি। তাই লিগ্যাল নোটিশ প্রাপ্তির ১৫ দিনের মধ্যে আইন প্রণয়নের উদ্যোগ নিতে বলা হয়েছে। অন্যথায় তিনি পরবর্তী আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন বলে নোটিশগ্রহিতাদেরকে জানিয়েছেন।

You Might Also Like