৬ বছরের শিশু বিয়ে পাগল!

নাম ডিন। বয়স তার ছয় বছর। পুঁচকে ছেলেই বলা চলে। কিন্তু পুঁচকে হলে কি হবে, মন তো আর পুঁচকে নয়। তার মনটা তো বড়। বড় বড় শখ আছে। সেই শখের তালিকার প্রথমেই আছে ‘দিল্লিকা লাড্ডু’ খাওয়ার অর্থাৎ বিয়ের করার। আর এর জন্য অপেক্ষা করতে নারাজ সে। কিন্তু তার শখের সামনে বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন বাবা।

বলে দিয়েছেন, বিয়ের জন্য তাকে আরো ১২ (৬২৬ সপ্তাহ) অপেক্ষা করতে হবে। তারপরই ভক্ষণ করতে পারবে ‘দিল্লিকা লাড্ডু’। কারণ ব্রিটেনে ছেলেদের বিয়ে করার ন্যূনতম বয়স ১৮ বছর।

তাই যারপর নাই ক্ষুদ্ধ ডিন। কি করবে ভেবে পায় না। কাকে নালিশ করবে? সবাই যে বাবার পক্ষই নিবে- এ ব্যাপারে কোনো সন্দেহ নেই। তাই হতাশা ছেয়ে যায় তাকে। অতঃপর ক্ষোভ প্রকাশ করার মাধ্যম হিসেবে বেচারা ইউটিউবকে বেছে নেয়?

নিজের রাগ, ক্ষোভ, দুঃখ ঝেরে ফেলে ইউটিউবে।

আর রাতারাতি বনে যায় সুপারস্টার। অল্প সময়ের মধ্যেই ভিউয়ার এক লাখ ছাড়িয়ে যায়। ডিনের সেই ভিডিও এখন সুপার হিট।

ইউটিউবের সেই ভিডিওতে দেখা যায়, কাঁদতে কাঁদতে হেচকি উঠে যাচ্ছে ডিনের। তারপরও বেচারা নিজেকে সামলে নিয়ে বলছে, ‘আমি আর কখনোই বিয়ে করব না। বয়স হতে এখনো ৮০০ মিলিয়ন বিলিয়ন সপ্তাহ বাকি, অথচ আমার বয়স এখন মাত্র ছয়। তারপর হবে সাত। ইস! আমার বয়স যদি ৮০ হতো তাহলে আমি এখনই বিয়ে করতে পারতাম।’

You Might Also Like