আম্পায়ারের ভুলেই আইপিএল থেকে বিদায় নিল পাঞ্জাব?

রোববার চেন্নাই সুপার কিংসের কাছে ৯ উইকেটে হেরে এবারের আইপিএল থেকে বিদায় নিয়েছে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। এই হারের পর নিজেদের ১৪ ম্যাচ শেষে পাঞ্জাবের পয়েন্ট দাঁড়ায় ১২। যে কারণে বিদায় ঘণ্টা নিশ্চিত হয়ে যায় প্রীতি জিনতার দলের।

খারাপ খেলে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায়ের পর পর ২০ সেপ্টেম্বর দিল্লি ক্যাপিট্যালসের বিপক্ষের ম্যাচে আম্পায়ারের এক ভুল ফের আলোচনায় চলে এসেছে।

পাঞ্জাব সমর্থকসহ ক্রিকেটবোদ্ধাদের মতে, ওই ম্যাচে আম্পায়ার নিতিন মেননের ভুলের কারণে দিল্লির বিপক্ষে হেরে যায় পাঞ্জাব। মূল্যবান ২ পয়েন্ট বঞ্চিত হয় লোকেশ রাহুলের দল। ওই ২ পয়েন্ট পেলে রোববারের ম্যাচ হারার পরও ১৪ পয়েন্ট নিয়ে প্লে-অফের আশা বেঁচে থাকত গেইলদের। সেই ২ পয়েন্টের কারণেই আইপিএল থেকে পাঞ্জাব বাদ পড়ে গেল বলে অভিযোগ সমর্থকদের।

উল্লেখ্য, গত ২০ সেপ্টেম্বর আসরের দ্বিতীয় ও নিজেদের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল দিল্লি ক্যাপিটালস ও কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। দিল্লির দেয়া ১৫৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ১৯তম ওভারে কাগিসো রাবাদার বলকে লং-অনের দিকে ঠেলে দেন মায়াঙ্ক আগারওয়াল।

দ্রুততার সঙ্গে ২ রান নেন দুই ব্যাটসম্যান মায়াঙ্ক ও ক্রিস জর্ডান। কিন্তু স্কয়ার লেগে দাঁড়ানো আম্পায়ার নিতিন মেনন জানান, জর্ডান প্রথম রান নেয়ার সময় পপিং ক্রিজের ভেতরে ব্যাট ছোঁয়াননি। ফলে সেই ২ রান থেকে একটি রান কেটে নেয়া হয়।

ওই এক রানের জন্য ম্যাচটি টাই হয় এবং খেলা গড়ায় সুপার ওভারে। পরে সেই সুপার ওভার জিতে ২ পয়েন্ট পায় দিল্লি।

পরে ভিডিও রিপ্লেতে স্পষ্টত দেখা গেছে, ভুল ছিলেন আম্পায়ার নিতিন মেনন। সেই রানটিতে পপিং ক্রিজের দাগ ঠিকই পার করেছিল জর্ডানের ব্যাট।

প্রীতি এদিন টুইটারে লেখেন– ‘এই করোনা পরিস্থিতিতে এতটা রাস্তা পেরিয়ে দুবাই যাই। তার পর ৬ দিন কোয়ারেন্টিনে থেকে, পাঁচবার করোনা পরীক্ষা করিয়েও হাসিমুখে ছিলাম। কিন্তু এই শর্ট রান আমাকে প্রচণ্ড আঘাত করেছে। প্রযুক্তির ব্যবহার যদি ঠিক করে না হয়, তা হলে সেটি রেখে দেয়ার মানেটা কী! বিসিসিআইয়ের এবার ব্যবস্থা নেয়া উচিত। প্রতি বছর একই কাণ্ড চলতে পারে না।’

বিষয়টি নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে আম্পায়ারের ওপর একহাত নেন ভারতের সাবেক ওপেনার বীরেন্দ্র শেবাগ।

সেদিন টুইটারে তিনি লিখেছিলেন– ‘ম্যাচের সেরা পুরস্কার আম্পায়ারকে দেয়া উচিত ছিল। সেই আম্পায়ারকে যিনি এটিকে শর্ট রান ঘোষণা করলেন।’

ওই ম্যাচ শেষে টুইটারে এ নিয়ে সতর্কবার্তা দিয়েছিলেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার আকাশ চোপড়া।

তিনি লিখেছিলেন– ‘বিষয়টি কেমন হবে যদি ২ পয়েন্টের জন্য পাঞ্জাব পরের রাউন্ডে যেতে না পারে? খুবই কঠিন!’ শেষ পর্যন্ত তার কথাই সত্যি হলো।