শেষ বাতিঘর

ভাষা আন্দোলন থেকে এমন একটি সাংস্কৃতিক আন্দোলন নেই, যাতে আনিসুজ্জামান অবদান রাখেননি। মুক্তিযুদ্ধেও তিনি শক্তি ও সমর্থন জুগিয়েছেন। শত্রু-মিত্র সবাই তাঁকে ভালোবাসতেন পঞ্চাশের শেষ বাতি নিভে গেল। ড. আনিসুজ্জামানের মৃত্যুতে

শেখ হাসিনার প্রস্তাব আমেরিকা ও চীনের খেলা

করোনা সংকটকে যেমন জাতীয় পর্যায়ে মোকাবেলা করতে হবে, তেমনি আন্তর্জাতিক পর্যায়েও করার জন্য সমন্বিত কার্যক্রম গ্রহণের ডাক দিয়েছেন শেখ হাসিনা। সেই সঙ্গে এই সমন্বিত কার্যক্রমের জন্য পাঁচ দফা প্রস্তাবও দিয়েছেন।

এই দুর্যোগে দুই মায়ের কণ্ঠে আশ্বাসবাণী

বলতে গেলে, ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রায় একই সময়ে বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস সম্পর্কে তাঁদের বক্তব্য দিয়েছেন। ব্রিটেনের রানি জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে বলেছেন, ‘ভবিষ্যতের মানুষ বলবে,

হায় রে আমার ভাগ্যরাতের তারা

ছোটবেলায় কোনো একটি গল্পের কথা মনে পড়ছে। প্রচণ্ড ঝড় আসন্ন। আকাশ কালো মেঘে ছেয়ে গেছে। গাছপালা নিথর নিস্তব্ধ। অর্থাৎ আসন্ন ঝড়ের পূর্বাভাস। এক জমিদার তাঁর প্রাসাদ থেকে বেরিয়ে এসে প্রতিবেশী

কালান্তরের বঙ্গবন্ধু এবং তাঁর রাজনীতি

পৃথিবীর সব দেশেই সব মহানায়কেরই যুগে যুগে নতুন করে মূল্যায়ন হয়। অনেকে জীবিতকালে পূজিত হন। মৃত্যুর পর সমালোচিত হন। যেমন—স্তালিন, গান্ধী, মাও জেদং ও চার্চিল। স্তালিন ও মাও জেদং তাঁদের

এই দানবের সৃষ্টি কাদের ঔরসে?

৪৬ বছর ধরে বসবাস করছি লন্ডনে। বলতে গেলে জীবনের বেশিরভাগই কাটালাম ব্রিটেনে। কিন্তু কখনও এমন আতঙ্কের মধ্যে দিন কাটাইনি। লন্ডনে যখন আসি, তখন এখানে চলছে আইরিশ সন্ত্রাস। সন্ত্রাস গেল। এলো

কৌশল হিসেবে ভালো, মাথায় তোলা ঠিক হবে না

ঢাকার একটি দৈনিকে (২৪ এপ্রিল) একটি খবর বেরিয়েছে। হেডিং ‘হেফাজত-বিএনপি গোপন যোগাযোগ বহাল।’ খবরে বলা হয়েছে, বিএনপি নেতারা দাবি করেছেন কৌশলগত কারণে হেফাজত এখন আওয়ামী লীগের সঙ্গে আঁতাত করলেও সাধারণ

‘প্রিয়, ফুল খেলবার দিন নয় অদ্য’

গত শতকের কবি সুভাষ মুখোপাধ্যায় লিখেছিলেন, ‘প্রিয়, ফুল খেলবার দিন নয় অদ্য, ধ্বংসের মুখোমুখি আমরা। ’ তিরিশের দশকের শেষদিকে দ্বিতীয় মহাযুদ্ধের বিশ্বধ্বংসী রণদামামা বেজে উঠেছিল। নাৎসবাদের অভ্যুত্থানে মানবসভ্যতা বিপন্ন হয়ে

ট্রাম্পের রণহুঙ্কারে শুধু কোরিয়া নাকি সমগ্র বিশ্বই বিপর্যস্ত হবে?

আজ (রোববার) ঘুম থেকে উঠেই লন্ডনের ভোরের কাগজে খবরের বিশাল হেডিং দেখলাম, Trump ready to strike kimis nuclear sites- কিমের আণবিক স্থাপনায় হামলা চালানোর জন্য ট্রাম্প প্রস্তুত। সোজা কথায় উত্তর

শেখ হাসিনার দিল্লি সফর ও প্রচারণার ধূম্রজাল

পঞ্চাশের দশকের কথা। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী তখন ছিলেন বগুড়ার মোহাম্মদ আলী। ভারতে তখন নেহরু জমানা। দিল্লিতে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে শীর্ষ বৈঠক হবে। মোহাম্মদ আলী জাঁক করে বললেন, তিনি এবার দিল্লি

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com