বাংলাদেশের পণ্য ৪৯টি দেশে শুল্কমুক্ত প্রবেশের সুবিধা পাচ্ছে : তোফায়েল আহমেদ

বাংলাদেশের পণ্য বিশ্বের ৪৯টি দেশে শুল্কমুক্ত প্রবেশের সুবিধা পাচ্ছে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।

একই সঙ্গে ২০১৫ সালের ১ জুন থেকে চিলিতে বাংলাদেশি সব পণ্য শুল্কমুক্ত প্রবেশাধিকার পাবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

রোববার জাতীয় সংসদে ২০১৪-১৫ অর্থবছরের বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় পিনু খানের (মহিলা আসন-২৩) এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা জানান।

তোফায়েল বলেন, ইউরোপিয়ান ইউনিয়নভুক্ত ২৮টি দেশ, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, নরওয়ে ও সুইজারল্যান্ড (অস্ত্র ও সামরিক সরঞ্জাম ব্যতীত), জাপান, তুরস্ক (তৈরি পোশাক ব্যতীত), কানাডা (পোল্ট্রি, ডেইরি, ডিম ব্যতীত) শুল্কমুক্ত পণ্য প্রবেশ করে।

তিনি বলেন, রাশিয়া ও বেলারুশ জিএসপি’র আওতায় ৭১টি পণ্য শুল্কমুক্ত সুবিধা প্রদান করে আসছে।

মন্ত্রী আরো বলেন, দক্ষিণ কোরিয়া ৪ হাজার ৮২০টি পণ্য, চীন ৪ হাজার ৭৮৮টি পণ্য, ভারত সাফটা’র আওতায় টোবাকো ও ড্রাগস ব্যতীত সব পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা প্রদান করে আসছে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, সাফটা চুক্তির আওতায় সার্কভুক্ত অন্যান্য দেশসমূহ (আফগানিস্তান, শ্রীলংকা, ভুটান, নেপাল, পাকিস্তান, মালদ্বীপ) নিদির্ষ্ট কিছু পণ্য রপ্তানিতে শুল্কমুক্ত সুবিধা দিচ্ছে। বিমসটেক’র আওতায় ২৯৯টি পণ্য রপ্তানিতে থাইল্যান্ড বাংলাদেশকে সুবিধা দিয়ে আসছে।

তিনি বলেন, মালয়েশিয়া ২৯৭টি পণ্য রপ্তানিতে বাংলাদেশকে শুল্কমুক্ত সুবিধা দিচ্ছে।

রপ্তানি সম্ভাবনায় বিভিন্ন দেশের সাথে এফটিএ চুক্তির মাধ্যমে ঐ সব দেশ থেকে শুল্কমুক্ত সুবিধা পেতে সরকার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলেও দাবি করেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।

You Might Also Like