বেসরকারিভাবে সেলিম ওসমান নির্বাচিত

নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনে উপনির্বাচনে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী সেলিম ওসমান। ১৪১টি কেন্দ্রের মধ্যে ১৪০টির বেসরকারি ফলাফলে সেলিম ওসমান পেয়েছেন ৮৩ হাজার ৯৯২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী (স্বতন্ত্র) এস এম আকরাম পেয়েছেন ৬৬ হাজার ৪২৯ ভোট। সহিংসতার অভিযোগ থাকায় বাকি কেন্দ্রটির ভোট বাতিল করা হয়েছে।

এদিকে কারচুপি আর ব্যাপক ভোট জালিয়াতির মধ্যে শেষ হয়েছে নারায়ণগঞ্জ-৫ (সদর) আসনের উপনির্বাচন। বৃহস্পতিবার সকাল আটটা থেকে একটানা বিকেল চারটা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ করা হয়।

নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনে মোট ভোটার তিন লাখ ৪২ হাজার ৪০৫ জন। এর মধ্যে কেবল বন্দরের ভোটার দুই লাখ ১০ হাজার ৯৬ জন। শহরের ভোটার এক লাখ ৪১ হাজার ৩০৯ জন। এতে বন্দরের ভোটেই নির্ধারিত হবে প্রার্থীর ভাগ্য।

সকাল আটটা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত বন্দরের ৮৯টি কেন্দ্র ও শহরের ৫২টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

এদিকে খুন, গুম ও সন্ত্রাসের কারণে বহুল আলোচিত নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের উপ-নির্বাচন নিয়ে প্রথম থেকে শঙ্কা থাকলেও শেষ পর্যন্ত নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে বলে দাবি করছে নির্বাচন কমিশন।

তবে কয়েকটি বিচ্ছিন্ন ঘটনায় অন্তত দুটি কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ বন্ধ রাখে প্রিজাইডিং কর্মকর্তা।

এদিকে নির্বাচন সুষ্ঠু হলে যেকোন ফলাফল মেনে নেবেন বলে বক্তব্য দিয়েছেন দুই হেভিওয়েট প্রার্থী।

অন্যদিকে একটি কেন্দ্র দখল করাকে কেন্দ্র করে নারায়ণগঞ্জ পুলিশের উপ-কমিশনারকে দেখে নেয়ার হুমকি দেন বিতর্কিত সংসদ সদস্য শামীম ওসমান।

এ আসনের উপ-নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সব মহল শঙ্কা প্রকাশ করে আসছিল। খোদ নির্বাচন কমিশন নারায়ণগঞ্জকে স্পর্শকাতর জায়গা হিসেবে আখ্যায়িত করেছে। ওসমান পরিবারের হুমকি-ধামকির কারণে অনেকে কমিশনে চিঠি দিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন।

নির্বাচনে কারচুপি ও কেন্দ্র দখল নিয়ে শামীম ওসমানের একটি গোপন বৈঠকের সংবাদ প্রকাশ হয়। বৈঠকের বিভিন্ন বক্তব্যের অডিও প্রকাশ হলে সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং কর্মকর্তা বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান।

বড় ধরণের সহিংসতা বা অনিয়ম না হলেও জাল ভোট পড়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। জাল ভোট দেয়ার অপরাধে র‌্যাব দুইজন অপরাধীকে আটক করে। তারা নাসিম ওসমানের সমর্থক বলে পুলিশ নিশ্চিত করেছে।

নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে বলে দাবি করে জেলার পুলিশ সুপার বলেছেন, নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হয়েছে। তবে ভোটার উপস্থিতি সকালে কম থাকলেও পরবর্তীতে বৃদ্ধি পেয়েছে।

You Might Also Like