হালদায় ডিম ছেড়েছে মা মাছ

দেশের একমাত্র ও বৃহত্তম প্রাকৃতিক মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র চট্টগ্রামের হালদা নদীতে ডিম ছেড়েছে কার্প জাতীয় মা মাছ।

শনিবার ভোরের দিকে হালদা নদীর বিভিন্ন পয়েন্টে মা মাছ ডিম ছেড়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন হালদা গবেষক ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মঞ্জুরুল কিবরিয়া।

এর আগে শুক্রবার বিকেলে হালদার কয়েকটি পয়েন্টে ডিম ছাড়ে মা মাছ। এরপর থেকেই হালদা পাড়ে ডিম সংগ্রহের জন্য অপেক্ষায় ছিলো ডিম সংগ্রহকারী জেলেরা।

আজ ভোর থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত হালদা নদীর বিভিন্ন পয়েন্টে ১০৫টি ডিম সংগ্রহকারী জেলে নৌকায় ১৬ কেজির মতো ডিম সংগৃহীত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন ড. মঞ্জুরুল কিবরিয়া। গত বছর একই সময়ে ৮০০ কেজির বেশি ডিম সংগৃহীত হয়েছিলো।

হালদায় ডিম ছাড়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম জেলা মৎস কর্মকর্তা প্রভাতী রানী দেব বলেছেন, হালদা নদীতে এখন শতাধিক নৌকা ডিম সংগ্রহ করছে।

হালদা নদীর গবেষক ড. মঞ্জুরুল কিবরিয়া বলেন, ‘সাধারণত চৈত্র থেকে বৈশাখ মাসে অমাবস্যা, পূর্ণিমা ও অষ্টমী তিথিতে পাহাড়ি ঢল আর শীতল আবহাওয়ায় কার্প জাতীয় মা মাছ হালদায় ডিম ছাড়ে। কিন্তু এর মধ্যে শুক্রবার চট্টগ্রামে প্রবল বৃষ্টিপাত হওয়ায় হালদা নদীতে আংশিক ঢল সৃষ্টি হয়। এই ঢলের কারণে শুক্রবার বিকেলে নমুনা ডিম এবং আজ ভোর রাতে হালদার মা মাছ পূর্ণাঙ্গভাবে ডিম ছাড়ে।’

মঞ্জুরুল কিবরিয় জানান, এবার ডিম ছাড়ার পরিমাণ খুবই কম এবং হতাশাজনক। প্রতিকূল পরিবেশ ও আবহাওয়ার কারণে এমন হচ্ছে।

হালদা তীরের হাটহাজারী উপজেলার আজিমের ঘাট, মদুনাঘাট, গড়দুয়ারা এবং নাছিমের ঘাটে সংগ্রহকারীরা ডিম সংগ্রহ করতে সক্ষম হয়েছে।

উল্লেখ্য, প্রায় ৯৮ কিলোমিটার দীর্ঘ চট্টগ্রামের হালদা নদী দক্ষিণ এশিয়ার সর্ববৃহৎ এবং একমাত্র প্রাকৃতিক মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র।

You Might Also Like