ট্রাম্পের সিরিয়া হামলা : সামাজিক মাধ্যমে প্রশংসা-নিন্দা দুটোই

গত শুক্রবার সিরিয়ার আল-শায়রাত বিমান ঘাঁটিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের নির্দেশে মিসাইল হামলার পর টুইটারসহ সামাজিক মাধ্যমগুলোতে প্রশংসা-নিন্দার ঝড় বয়ে যাচ্ছে।

আসাদবিরোধী সিরীয়রাসহ আরব বিশ্বের অনেকেই ট্রাম্পের প্রশংসায় পঞ্চমুখ। আরবরা কৌতুকের ছলে ট্রাম্পের নতুন নামকরণ করেছে ‘আবু ইভাঙ্কা আল-আমরিকি’ (ইভাঙ্কার মার্কিন বাবা) বা সংক্ষেপে ‘আবু ইভাঙ্কা’। ‘ট্রাম্পের অবতার’ (অনলাইনে আইকন হিসেবে ব্যবহৃত ছবি) ব্যবহার করার হিড়িক পড়েছে ইন্টারনেটে। বিশেষ করে ‘আমরা তোমায় ভালবাসি’ শিরোনামে সিরিয়ার পতাকায় মানচিত্র ও তার মধ্যে আসাদের ছবিসম্বলিত একটি পোস্টারের অনুকরণে ট্রাম্পের একটি ‘অবতার’ ব্যবহার করছেন কেউ কেউ। ট্রাম্পের ছবি ফোটোশপ করে ফেজ টুপি বা দাঁড়ি লাগিয়েও একই শিরোনামে ব্যবহার করা হচ্ছে।

উত্তর সিরিয়ার এক ফালাফেল (মধ্যপ্রাচ্যের খাবার) দোকানদার তার দোকানের নাম পরিবর্তন করে ট্রাম্পের নামে রাখছেন। এক বিরোধী দলীয় কর্মী নিজের প্রথম সন্তানের নাম ট্রাম্পের নামে রাখবেন বলে জানিয়েছেন।

সামাজিক মাধ্যম ব্যবহারকারীরা ট্রাম্পকে সিরিয়ার বিদ্রোহের নায়ক হিসেবে বর্ণনা করছেন। কিন্তু কেউ কেউ ব্যাঙ্গাত্মক দৃষ্টিকোণ থেকেও ট্রাম্পের ‘অবতার’ ব্যবহার করছে। তবে ট্রাম্পের মিসাইল হামলার সমর্থন করছে প্রায় সবাই। যদিও এ ব্যাপারেও নেতিবাচক মন্তব্য করছেন কেউ কেউ।

অন্যদিকে, মার্কিনিরা ট্রাম্পের সমালোচনায় মুখর ছিল টুইটারে। বিশেষত, ৩য় বিশ্বযুদ্ধ এবং সেনাবাহিনীতে বাধ্যতামূলক যোগদানের ভয় দেখা গেছে তাদের টুইটার বার্তায়। কেউ কেউ সেনাবাহিনীতে দায়িত্ব পালনের আজ্ঞা এড়ানো নিয়ে কৌতুক করেন, কেউ ট্রাম্প সমর্থকদের প্রথমে যুদ্ধে পাঠাতে বলেন।

You Might Also Like