স্বৈরশাসকদের তালিকায় শেখ হাসিনার নামও থাকবে : ফখরুল

পৃথিবীর ঘৃণ্যতম স্বৈরশাসকদের নামের তালিকায় শেখ হাসিনার নামও লেখা থাকবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সোমবার বিকেলে রাজধানীর হোটেল সারিনায় ‘জি-নাইন’ আয়োজিত ‘বাংলাদেশ ২০০৯-২০১৪: জীবনের অধিকার নেই যেখানে’ শীষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, আওয়ামী লীগ দেশে হত্যা-গুম ও মানুষের ওপর নির্যাতন করে গায়ের জোরে ক্ষমতায় টিকে আছে। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার ভিন্ন কায়দায় দেশে স্বৈরশাসন কায়েম করেছে। জনগণ এ সরকারের পতন চায়।

‘এক্সট্রা জুডিসিয়াল কিলিং এখন কোন ব্যাপার নয়’ -প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমামের এই বক্তব্যের প্রেক্ষিতে মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগের চিন্তার মধ্যে মানুষ খুন করার বিষয়টি ধারণ করাই রয়েছে। তারা যে কাউকে যখন তখন খুন করতে পারে।

আওয়ামী লীগের কাছে মানুষ হত্যা করা কোন বিষয় না বলেও মন্তব্য করেন মির্জা ফখরুল।

আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আব্দুল হামিদ খান ভাসানীর হাতেই আওয়ামী লীগের জন্ম হয়। আজ তাদের ৬৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী। আগে তারা দেশের গণতন্ত্রের জন্য আন্দোলন করেছে আমরা দেখেছি। কিন্তু ৭১-এর পরের আওয়ামী লীগ ও বর্তমান আওয়ামী লীগের চরিত্রের মধ্যে কোন পার্থক্য নেই। তারা পূর্বের ন্যায় দেশে মানুষ হত্যা করে ক্ষমতায় টিকে থাকতে চায়।

এই আওয়ামী লীগ সেই আওয়ামী লীগ যারা নিজেরাই নিজেদের খায় বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

তিনি বলেন, এ সরকার দেশের জনগণের সরকার নয়। আওয়ামী লীগ এ যাবৎকালে অসংখ্য মানুষ হত্যা ও গুম করেছে। এদের ক্ষমতা থেকে সরানো ছাড়া জনগণের আর কোন পথ নেই।

বর্তমান ‘স্বৈরশাসন’ থেকে দেশকে ও দেশের গণতন্ত্রকে বাঁচাতে হলে গোটা জাতিকে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানান মির্জা ফখরুল।

অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের প্রেস সেক্রেটারি মারুফ কামাল খান।

এ সময় অনুষ্ঠানে ২০০৯ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত বাংলাদেশের মানবাধিকার লঙ্ঘন নিয়ে একটি বই বিতরণ ও একটি ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয়।

‘জি-নাইন’ এর প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ আসাদুজ্জামানের সভাপতিত্বে সেমিনারে আরো বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা আমির খসরু মাহমুদ, অধ্যাপক ড. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, বিশিষ্ট সাংবাদিক শফিক রেহমান, সংগঠনের সাবেক সভাপতি সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।

You Might Also Like