আইনি জটিলতায় ‘রেঙ্গুন’

সাইফ আলী খান, কঙ্গনা রাণৌত ও শহিদ কাপুর অভিনীত সিনেমা রেঙ্গুন। বিশাল ভরদ্বাজ পরিচালিত সিনেমাটি মুক্তির আর এক সপ্তাহ বাকি। এরই মধ্যে আইনি জটিলতায় পড়েছে সিনেমাটি।

প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ওয়াদিয়া মুভিটোন প্রাইভেট লিমিটেড রেঙ্গুন সিনেমার পরিচালক বিশাল ভরদ্বাজ ও নির্মাতাদের বিরুদ্ধে কপিরাইট আইন ভঙ্গ করার দায়ে মুম্বাই হাই কোর্টে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওয়াদিয়া মুভিটোন প্রাইভেট লিমিটেডের প্রধান রয় ওয়াদিয়া জানিয়েছেন, রেঙ্গুন সিনেমায় কঙ্গনা রাণৌতের জুলিয়া চরিত্রটি অস্ট্রেলিয়ান অভিনেত্রী ম্যারি ইভান্সের অনুকরণে করা হয়েছে। ম্যারি ‘ফেয়ারলেস নাদিয়া’ নামে পরিচিত ছিলেন। রয় ওয়াদিয়ার দাবি, ফেয়ারলেস নাদিয়ার সকল সিনেমা, পোস্টার ও প্রচারণার স্বত্ব তার প্রতিষ্ঠানের।

মামলায় আরো দাবি করা হয়েছে, কপিরাইট আইন ভঙ্গ করে কঙ্গনার জুলিয়া চরিত্রের মাধ্যমে ‘ফেয়ারলেস নাদিয়া’র কথা বলার ভঙ্গি, পোশাক, পোজ সবকিছুই অনুকরণ করা হয়েছে। ওয়াদিয়ার ভাষ্য মতে, নাদিয়া প্রায়ই ‘ব্লাডি হেল’ শব্দটি ব্যবহার করতেন। মজার ব্যাপার হলো রেঙ্গুন সিনেমার প্রথম গানের শিরোনামও একই।

বিষয়টি নিয়ে রয় ওয়াদিয়া চটেছেন তার মূল কারণ সম্পর্কে জানা যায়, ২০০৬ সালে ‘ফেয়ারলেস নাদিয়া’ কে নিয়ে একটি সিনেমা নির্মাণের জন্য ইউটিভির রনি স্ক্রুওয়ালার সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন রয়। তখন সিনেমাটির নাম রাখা হয়েছিল জুলিয়া। কিন্তু পরবর্তী সিনেমাটি নির্মিত হয়নি। তখন বিশাল এবং ইউটিভি তাকে আশ্বস্ত করেছিলেন এ নিয়ে সিনেমা নির্মাণ হবে না। এ জন্য ২০০৮ সালে জার্মান একটি প্রতিষ্ঠানের কাছে সিনেমার কপিরাইট স্বত্ব বিক্রি করেন রয় ওয়াদিয়া। কিন্তু সাত বছর পর তিনি জানতে পারেন, রেঙ্গুন নামের একটি সিনেমা নির্মিত হচ্ছে যার প্রধান চরিত্রের নাম জুলিয়া। রয় জানিয়েছেন, যদি রেঙ্গুন সিনেমাটি মুক্তি দেয়ার চেষ্টা করা হয় তা হলে নির্মাতাদের আইনি ঝামেলার মুখোমুখি হতে হবে।

এদিকে ২০১৬ সালে যখন রেঙ্গুন সিনেমাটির শুটিং শুরু হয় তখন বিশাল রয় ওয়াদিয়াকে নিশ্চিত করেছিলেন, সিনেমাটি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের প্রেক্ষাপটে একটি প্রেম কাহিনি নিয়ে নির্মিত। কিন্তু পরবর্তী যখন প্রোমো প্রকাশ পায় ওয়াদিয়া বুঝতে পারেন সিনেমাটি ‘ফেয়ারলেস নাদিয়া’র অনুকরণে নির্মিত।

এরপরই এ বিষয়ে আইনি পদক্ষেপ নেয়া হয়। আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি মুম্বাই উচ্চ আদালতে এ বিষয়ে শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে।

You Might Also Like