ইয়েমেনে আলজাজিরার কার্যালয়ে ভাঙচুর

ইয়েমেনের সানায় আলজাজিরার বন্ধ করে দেওয়া কার্যালয়ে ভাঙচুর করে যন্ত্রপাতি লুট করেছে শিয়াপন্থি হুতি বিদ্রোহীরা।

‘ইয়েমেনে চুরির অস্ত্র’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন প্রচারের পর রোববার সংবাদ সংস্থাটির সানা ব্যুরো কার্যালয়ে হামলা চালানো হয়। এই প্রতিবেদনে অস্ত্র লুটে নেওয়ার জন্য হুতি বিদ্রোহীদের দায়ী করা হয়।

আলজাজিরার আরবি ভাষার সম্প্রচারে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দুটি গাড়িতে ১০ হুতি যোদ্ধা ব্যুরো কার্যালয়ে পৌঁছে ভাঙচুর চালায় এবং কার্যালয়ের ডেস্ক, টেলিভিশন ও স্ক্রিন লুট করে নিয়ে যায়। আলজাজিরার ইয়েমেন কার্যালয়ের প্রধান সাইদ থাবিত তার ফেসবুক পেজে এ তথ্য দিয়েছেন।

আলজাজিরার অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে হুতিদের অস্ত্র লুট, মজুত ও বিভিন্ন ধরনের অস্ত্রের ভান্ডার নিয়ে তথ্য প্রকাশ করে। প্রতিবেদনটি ইয়েমেনের সরকারের পক্ষে চলে যাওয়ায় হিংসার বশে হুতিরা তাদের কার্যালয়ে হামলা চালায়। ২০১৫ সালে আলজাজিরার একজন সম্প্রচার ইঞ্জিনিয়ার ও এক নিরাপত্তারক্ষীকে অপহরণ করা হয়।

২০১৪ সালে ইয়েমেনে গৃহযুদ্ধ শুরু হয়। প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট আলী আবদুল্লাহ সালেহর অনুসারী ও ইরানসমর্থিত হুতিরা বিদ্রোহ ঘোষণা করলে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে। রাজধানী সানাসহ দেশের বৃহৎ অংশ দখল করে নেয় তারা।

আন্তর্জাতিক মহলে স্বীকৃত ইয়েমেনের প্রেসিডেন্ট আব্দ-রাব্বু মানসুর হাদির সরকার ও হুতি বিদ্রোহীদের মধ্যে সংঘর্ষে দেশটি ভয়াবহ বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে। খাদ্যনিরাপত্তা একেবারে ভেঙে পড়েছে। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থাগুলো বিপর্যয় মোকাবিলায় উদ্যোগ নিলেও যুদ্ধ অব্যাহত থাকায় তা ব্যর্থ হচ্ছে।

You Might Also Like