কালিনিনগ্রাদ নিয়ে চরম টানাপড়েনে আমেরিকা-রাশিয়া

কালিনিনগ্রাদে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের ব্যাপারে মার্কিন সমালোচনা প্রত্যাখ্যান করেছে রাশিয়া। দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে, আমেরিকাই ইউরোপে ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করে আঞ্চলিক স্থিতিশীলতাকে বিপদাপন্ন করে তুলেছে।

মঙ্গলবার মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র জন কিরবি বলেন, কালিনিনগ্রাদে রাশিয়ার এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ও ইস্কান্দার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের ফলে ইউরোপের নিরাপত্তা বিঘ্নিত হবে।

রাশিয়ার সর্বপশ্চিম সীমান্তে লিথুয়ানিয়া ও পোল্যান্ডের কাছে কালিনিনগ্রাদ অঞ্চল অবস্থিত। এই অঞ্চলে এসব সমরাস্ত্র মোতায়েন করা হবে বলে সোমবার ঘোষণা করেছে মস্কো।

জন কিরবির বক্তব্যের জবাবে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মেজর জেনারেল ইগোর কোনাশেঙ্কভ বলেছেন, আজ ইউরোপের নিরাপত্তা বিঘ্নিত হচ্ছে তাদের দ্বারা যারা এই মহাদেশ থেকে হাজার হাজার কিলোমিটার দূরে থেকে সমরাস্ত্র এনে এখানে মোতায়েন করেছে।

তিনি পোল্যান্ড এবং রোমানিয়ায় মার্কিন ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা মোতায়েনের কথা তুলে ধরেন। রুশ মুখপাত্র আরো বলেন, মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো জোট রাশিয়ার সীমান্তবর্তী লাটভিয়া, লিথুয়ানিয়া, এস্তোনিয়া ও পোল্যান্ডে সেনা মোতায়েন করতে যাচ্ছে। সেইসঙ্গে নরওয়েতে মোতায়েন হতে যাচ্ছে মার্কিন মেরিন সেনা। এ অবস্থায় আত্মরক্ষার জন্য রাশিয়াকে সম্ভাব্য সব ব্যবস্থা নিতে হবে।

কোনাশেঙ্কভ বলেন, গত ১০ বছরে মার্কিন সামরিক নীতির কারণেই ইউরোপের নিরাপত্তা সবচেয়ে বেশি বিপদাপন্ন হয়েছে। অথচ রাশিয়া যে কালিনিনগ্রাদ অঞ্চলে সমরাস্ত্র মোতায়েন করতে যাচ্ছে তা তার অবিচ্ছেদ্য ভূখণ্ডের অংশ।

You Might Also Like