পিকে-তুরানের গোলে শীর্ষে বার্সা

চ্যাম্পিয়নস লিগে গ্রুপ ‘সি’তে নিজেদের প্রথম ম্যাচে সেল্টিককে ৭-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল বার্সেলোনা। এ আত্মবিশ্বাস পুঁজি করেই মনশেনগ্লাডবাখের বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে জামার্নি গিয়েছিল কাতালান ক্লাবটি।

হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের ওই ম্যাচে মনশেনগ্লাডবাখকে ২-১ ব্যবধানে হারিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে অবস্থান করছে লুইস এনরিকের দল।

দলের সবচেয়ে বড় তারকা লিওনেল মেসিকে ছাড়াই বরুসিয়া পার্কে খেলতে গিয়েছিল বার্সেলোনা। তবে মেসি না থাকলেও লুইস সুয়ারেজ ও নেইমারের মতো খেলোয়াড়রা দলেই ছিলেন। তারপরও ম্যাচের প্রথমার্ধে এক গোল হজম করে পিছিয়ে থাকতে হয়েছে তাদের।

ম্যাচের সপ্তম মিনিটে নেইমার গোলের সুযোগ পেয়েও গোলরক্ষককে ফাঁকি দিতে পারেননি। ম্যাচের ১১ মিনিটে সুয়ারেজের শট গোলপোস্ট বরাবর না যাওয়ায় আরও একটি সুযোগ নষ্ট হয়।

তবে বার্সেলোনার এ গোল মিসের সুযোগে ম্যাচের ৩৪ মিনিটে টরগান হাজার্ডের গোলে এগিয়ে যায় মনশেনগ্লাডবাখ। বিশ্রামে যাওয়ার আগে এ গোলের শোধ দিতে পারেনি বার্সা। ফলে প্রথমার্ধে ১-০ ব্যবধানে পিছিয়ে থেকেই বিরতিতে যেতে হয় তাদের।
বিশ্রাম শেষে খেলায় ফিরে লিড ধরে রাখার চেষ্টা করে মনশেনগ্লাডবাখ। এজন্য শক্তিশালী বার্সার বিপক্ষে রক্ষনাত্মক খেলার কৌশল নেয় দলটি । তবে ম্যাচের ৬৫ মিনিটে স্বাগতিকদের রক্ষণ দেয়াল ভেঙ্গে বার্সাকে সমতায় ফেরান আরদা তুরান। ব্রাজিল তারকা নেইমারের সহায়তায় এ গোল করেন তিনি।

সমতায় ফেরার পর আক্রমনাত্মক হয়ে উঠে বার্সা। ম্যাচের ৭৪ মিনিটে নেইমারের কর্নার থেকে সুয়ারেজের বল গোলরক্ষক ফিরিয়ে দিলে ফিরতি শটে তা জালে পাঠান বার্সা ডিফেন্ডার পিকে। এরপর আর কোনো গোল না হওয়ায় ২-১ ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে বার্সেলোনা।

এ জয়ের ফলে চ্যাম্পিয়নস লিগে গ্রুপ ‘সি’তে শীর্ষে থাকা বার্সার পয়েন্ট দাড়িয়েছে ৬ এ। আর সেল্টিকের বিপক্ষে অপর ম্যাচে ২-২ ব্যবধানে ড্র করায় ৪ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ম্যানচেস্টার সিটি।

You Might Also Like