বিএনপি নেতা হান্নান শাহ’র লাশ ঢাকায় পৌঁছেছে: নেতাদের শোক প্রকাশ

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মরহুম আ স ম হান্নান শাহ’র লাশ বুধবার সন্ধ্যা ৬টায় ঢাকায় এসে পৌঁছেছে। মঙ্গলবার ভোরে সিঙ্গাপুরের একটি হাসপাতালে মৃত্যু হয় হান্নান শাহ’র।

আজ সন্ধ্যায় শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তার লাশ গ্রহণের সময় পরিবারের সদস্যরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমানসহ বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা।

বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের আব্দুল্লাহ আল নোমান বলেন, আমরা এই জাতীয় নেতার মৃত্যুতে শোকাহত। তিনি আজীবন গণতন্ত্রের জন্য সংগ্রাম করেছেন। তার এই মৃত্যুতে আমাদের যে শোক, সেই শোককে শক্তিতে পরিণত করে স্বৈরাচার সরকারের পতনকে তরান্বিত করব।

বিমানবন্দর থেকে হান্নান শাহ’র লাশ তার মহাখালীর ডিওএইচএসের বাসায় নেওয়া হয়। সেখানে রাত ৮টায় লাশ দেখতে যান দলের চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া। রাতে তার লাশ সিএমএইচ হাসপাতালের হিমাগারে রাখা হয়।

হান্নান শাহ’র প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হয় সিঙ্গাপুরে। এদিকে, হান্নান শাহ’র মৃত্যুতে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে শোকবই খোলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার পর্যন্ত শোকবই উন্মুক্ত থাকবে।

দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ’র মৃত্যুতে চার দিনের শোক ঘোষণা করেছে বিএনপি। এ সময় নয়া পল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়সহ সারাদেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত থাকবে। উত্তোলন করা হয় কালো পতাকা। এ ছাড়া শুক্রবার (৩০ সেপ্টেম্বর) সারাদেশে দোয়া মাহফিল হবে।

দলের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় মহাখালী নিউ ডিওএইচএসস্থ মসজিদে দ্বিতীয় জানাজা, সকাল সাড়ে ১১টায় জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় তৃতীয় জানাযা ও বাদ জোহর নয়া পল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে চতুর্থ জানাযা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর শুক্রবার সকাল ৯টায় গাজীপুরস্থ রাজবাড়ী মাঠে পঞ্চম জানাজা সকাল সাড়ে ১০টায় কাপাসিয়া পাইলট স্কুল মাঠে ষষ্ঠ জানাযা হবে। এরপর জুমার নামাজের পর কাপাসিয়ার ঘাগুটিয়া চালাবাজার হাইস্কুল মাঠে জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে।#

পার্সটুডে

You Might Also Like