বিভিন্ন মহাসড়কে যানজট: ঈদে ঘরে ফেরা মানুষের দুর্ভোগ চরমে

বাংলাদেশে পবিত্র ঈদ-উল আজহা উদযাপিত হবে হবে ১৩ সেপ্টেম্বর। ঈদের সরকারি ছুটি রোববার থেকে শুরু হলেও তার আগে শুক্র-শনি সাপ্তাহিক ছুটি হবার কারণে আজ সপ্তাহের শেষ কর্মদিবসে বেশীরভাগ মানুষ অফিস ছুটির পর পড়িমড়ি করে ছুটেছেন ট্রেন, বাস ও নৌ টার্মিনালের উদ্দেশ্যে ।

টানে যারা এবার ঈদ করতে গ্রামে যাবেন, তাদের একটি বড় অংশ ইতোমধ্যে ঢাকা ছাড়তে শুরু করেছেন। আর পথে নেমেই পড়তে হয়েছে ঈদের দুর্ভোগে।

ঈদের আগে রেলযাত্রা শুরু হয়েছে বুধবার বিকেল থেকেই। শেষ কর্মদিবসে আজ সকালে কমলাপুর স্টেশনে দেখা গেছে অন‌্য দিনের তুলনায় বেশি ভিড়।

রেল কর্তৃপক্ষ বলছে, এবার ঈদযাত্রায় রেলওয়ে প্রতিদিন ২ লাখ ৬০ হাজারের বেশি যাত্রী বহন করবে। কেবল কমলাপুর থেকেই ৩২টি আন্তঃনগরসহ ৬৯টি ট্রেনে দিনে প্রায় ৫০ হাজার যাত্রীকে বাড়িতে পৌঁছে দেবে।

ওদিকে, ঢাকা থেকে বহির্মূখী যাত্রায় মহাসড়কে শুরু হয়েছে দুর্ভোগ। পদ্মায় পানি বৃদ্ধি, তীব্র স্রোত ও নদী ভাঙনের কারণে ফেরি চলাচলে বিপর্যয় সৃষ্টি হয়েছে।

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে যানজটের কারণে নাকাল হতে হচ্ছে যাত্রীদের। মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে যানবাহন বিকল ও অতিরিক্ত যানবাহনের চাপের কারণে গতকাল বুধবার দিনভর ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে থেমে থেমে যানজট লাগে। একপর্যায়ে রাতে যানজট মির্জাপুরের গোড়াইয়ের ক্যাডেট কলেজ এলাকা থেকে বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব প্রান্ত পর্যন্ত প্রায় ৫৫ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে বিস্তৃত হয়ে যায়।

কোনাবাড়ী হাইওয়ে পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলী আকবর বলেন, ঢাকা-টাঙ্গাইল ও ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে আজ সকাল থেকে পুলিশের প্রায় এক হাজার সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন। যানজট নিরসনে কমিউনিটি পুলিশের ১২০০ সদস্য ভোর থেকে কাজ করছেন।

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া ফেরিঘাটে ঈদে ঘরমুখী মানুষের চাপ বাড়ছে। ওপারে দৌলতদিয়ায় চারটি ঘাটের মধ্যে দুটি অচল থাকায় পারাপারে সমস্যা হচ্ছে। ফলে উভয় পাড়ে যানবাহনের সারি ক্রমে দীর্ঘ হচ্ছে। যানবাহন ও যাত্রী পারাপারে জট সৃষ্টি হয়েছে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন সংস্থার (বিআইডব্লিউটিসি) দৌলতদিয়া কার্যালয়ের ব্যবস্থাপক শফিকুল ইসলাম জানান, ফেরির সংখ্যা পর্যাপ্ত থাকলেও ঘাটসংকটের কারণে ফেরি চালানো যাচ্ছে না। এতে যানবাহন চলাচল ব্যাহত হচ্ছে। ঘাটে আটকা পড়েছে শত শত গাড়ি।

ও দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার দাউদকান্দিতে যানজট সৃষ্টি হয়েছে। আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে পশুবাহী ট্রাক, ঈদে ঘরে ফেরা মানুষের চাপ সব মিলিয়ে চরম দুর্ভোগ

কুমিল্লা পুলিশ কন্ট্রোল রুম জানিয়েছে, গতকাল বুধবার মধ্যরাতে মুন্সীগঞ্জের ভবেরচর এলাকায় গরুবাহী একটি ট্রাক বিকল হলে আজ (বৃহস্পতিবার) ভোরে ভবেরচর থেকে কুমিল্লার দাউদকান্দি টোলপ্লাজা ও গৌরীপুরের শহীদনগর পর্যন্ত যানজটের সৃষ্টি হয়। পুলিশের তৎপরতায় সকাল সাড়ে ৯টার দিকে মহাসড়কে কুমিল্লা অংশে যানজট কমে আসে। তবে অতিরিক্ত গাড়ির চাপের কারণে মহাসড়কে ধীরগতিতে যান চলাচল করছে। কোথাও থেমে থেমে যানজটেরও সৃষ্টি হচ্ছে।

এদিকে, যানজট নিরসন ও যাত্রীদের নির্বিঘ্নে গন্তব্যে পৌঁছানোর জন্য ঈদুল আজহার আগের ৩ দিন এবং ঈদের পরের ৩ দিন মহাসড়কে ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান ও লরি চলাচল নিষিদ্ধ করেছে সরকার।

আন্তঃমন্ত্রণালয় সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে বলে বৃহস্পতিবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য-দ্রব্য, পঁচনশীল দ্রব্য, গার্মেন্টস সামগ্রী, ঔষধ, কাঁচা চামড়া এবং জ্বালানি বহনকারী যানবাহন এ নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে।

You Might Also Like