যাত্রী স্বল্পতার কারণে ১০ হজ ফ্লাইট বাতিল

বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স যাত্রী স্বল্পতার কারণে দেখিয়ে এখন পর্যন্ত মোট ১০টি হজ ফ্লাইট বাতিল করেছে। বাতিলকৃত ফ্লাইটের কারণে বিমানের হজযাত্রী পরিবহনে ৫ হাজার আসনের ক্যাপাসিটি মার খেয়েছে।

গত ৪ আগস্ট থেকে শুরু হওয়া হজ ফ্লাইট পরিচালন কার্যক্রমের আওতায় বাতিলকৃত ফ্লাইটের কারণে বিমানকে মারাত্মক আর্থিক ক্ষতিরও মুখোমুখি হতে হচ্ছে। এ অবস্থায়, হজ এজেন্টদের আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে আসন সংরক্ষণ-পূর্বক টিকিট সংগ্রহ করার অনুরোধ জানিয়েছে বিমান কর্তৃপক্ষ।

হজ এজেন্সিদের পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, কোটা পদ্ধতির জটিলতার ফাঁদে পড়েছে হাজার হাজার হজযাত্রী। কনফার্ম টিকিট থাকার পরও দেরিতে কোটা অবমুক্ত করায় অনেক হজযাত্রী এখনো প্রয়োজনীয় কাগজপত্র হাতে পায়নি।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ থেকে হজ পালনে এ বছর বাইতুল্লাহ জিয়ারতে যাবার কথা ১ লাখ ১ হাজার ৭৫৮ জন হজযাত্রীর। গত ৪ আগস্ট থেকে যৌথভাবে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ও সৌদি এয়ারলাইন্স হজযাত্রী পরিবহন শুরু করেছে।

ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী- এ বছর সরকারি ব্যবস্থাপনার ২ হাজার ৭০৫ জন এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনার হজযাত্রী ৩৪ হাজার ৪৭ জন হজ্ব পালন করার কথা। মোট হজযাত্রীর মধ্যে ১৬ আগস্ট পর্যন্ত ৩৬ হাজার ৭৫২ জন সৌদি আরবে পৌঁছেছেন। আজ (বুধবার) পর্যন্ত পরিচালিত হজ ফ্লাইট সংখ্যা ১১১টি। এর মধ্যে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স পরিচালনা করেছে ৪৭টি ফ্লাইট এবং সৌদি এয়ারলাইন্স পরিচালনা করেছে ৬৪টি ফ্লাইট।

You Might Also Like