মধ্যরাতে কলেজছাত্রীর ত্রাতা হলেন নির্ভীক সাজিদ

জগতে যেমন পাশবিক মানসিকতার লোক আছে, তেমনি আছে মানবতাবোধের মানুষও। এই কথাটিই আবার প্রমাণ করলেন কলকাতার যুবক মোহাম্মদ সাজিদ। মধ্যরাতে দুই দুর্বৃত্ত অসৎ উদ্দেশে এক তরুণীর পিছু নিলেও ত্রাতা হয়ে পাশে দাঁড়িয়ে ওই তরুণীকে বাসায় পৌঁছে দিলেন তিনি।

শুক্রবার (১২ আগস্ট) রাতে ঘটেছে এই ঘটনা। আর ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে খবরটি এসেছে রোববার (১৪ আগস্ট)।

সংবাদমাধ্যম জানায়, সাজিদ কলকাতার একবালপুরের সুধী বোস রোডের বাসিন্দা। কাজ করেন একটি বেসরকারি সংস্থায়। একবালপুরের অদূরে জিঞ্জিরা বাজারেও তার বাড়ি রয়েছে।

সাজিদের বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যম ঘটনার বিবরণ দেয়, প্রতিরাতের মতো শুক্রবারও জিঞ্জিরা বাজারের বাড়ি থেকে রাতের খাওয়া সেরে মোটরসাইকেলযোগে একবালপুরে ফিরছিলেন সাজিদ। রাতে সাড়ে ১২টার দিকে খিদিরপুর ব্রিজের কাছে দেখেন, এক তরুণীর পিছু নিয়েছে দুই যুবক৷

সাজিদের মনে হলো, দুই যুবক হয়তো ওই মেয়ের পরিচিত৷ হয়তো নিজেদের মধ্যে কোনো ঝামেলা হয়েছে৷ কিন্তু কিছুক্ষণ পর তার মনে হয়, ওই দুই যুবক তরুণীটিকে জোর করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছে।

এরপরই নিজের মোটরাইকেল দাঁড় করিয়ে চিৎকার শুরু করেন সাজিদ৷ ফোন করেন পুলিশে। তার চিৎকারে চম্পট দেয় সেই যুবক। পরে ‍সাজিদ ওই তরুণীটির সঙ্গে কথা বলে জানতে পারেন, যুবক দু’জন তাকে অনেকক্ষণ ধরে উত্যক্ত করছিল এবং তাকে জোর করে মোটরসাইকেলে তোলার চেষ্টা করছিলো।

সাজিদ বলেন, ‘ওই ছেলে দু’জন পালালে আমি তাকে মোটরসাইকেলে বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার বলি৷ কিন্তু মেয়েটি তাতে রাজি হচ্ছিলো না৷ একাই হাঁটতে শুরু করে। এ দিকে রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় বেশ কয়েকটি লরিচালকও তাকে দেখে কটূক্তি করতে শুরু করে৷ তাই তার সঙ্গে আমিও মোটরসাইকেল নিয়ে চলতে শুরু করি৷’

সাজিদ জানান, তিনি তখন কেবল ভাবছিলেন, পুলিশের আশ্রয়ে দিতে না পারলে অন্য বিপদে পড়তে পারে মেয়েটি। পরে পুলিশ এলে তাকে বুঝিয়ে দিয়ে বাড়ি ফিরে যান সাজিদ।

পুলিশ জানায়, কলকাতার দক্ষিণের চারুচন্দ্র কলেজের ইংরেজি প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী মেয়েটি৷ তার বাড়ি তিলজলার বন্ডেল গেট এলাকায়। তার বাবা-মা’র সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, পরীক্ষা এলেই চিন্তা থেকে মানসিক অবসাদে ভোগেন ওই ছাত্রী৷ এর আগেও কয়েকবার এভাবে বাড়ি ছেড়েছিলেন তিনি৷

শুক্রবার দেশ প্রিয় পার্ক এলাকায় এক বান্ধবীর বাড়িতে দেখা করতে যাওয়ার জন্য বেরোন তিনি৷ তারপর থেকেই লাপাত্তা। বান্ধবীর বাড়ি থেকে গেলেও সেখান থেকে বেরিয়ে রাস্তা হারিয়ে ফেলেন ওই তরুণী।

সাজিদের এমন সাহসী ভূমিকায় তাকে প্রশংসায় ভাসাচ্ছে পুলিশ। কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছে ওই ছাত্রীর পরিবারও। পুলিশ জানাচ্ছে, কলেজছাত্রীর ত্রাতা হওয়া সাজিদকে পুরস্কৃতও করা হতে পারে ৷

You Might Also Like