হামলার পর লন্ডন জুড়ে কড়া নিরাপত্তা

ঘুম ভেঙ্গে বৃহস্পতিবার (০৪ আগস্ট) লন্ডনবাসী দেখছে গোটা নগর জুড়ে কড়া পুলিশ প্রহরা। ভারী ভারী অস্ত্র হাতে পুলিশ সদস্যরা টিউব স্টেশনগুলোর বাইরে দাঁড়িয়ে নিশ্চিত করছে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

সড়কে সড়কে একটু পরপরই পুলিশ দাঁড়িয়ে। পর্যটন কেন্দ্রগুলোতেও চলছে তাদের টহল। নগরীতে সন্ত্রাসী হামলায় এক বৃদ্ধার মৃত্যুর পর এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

রাস্তায় পুলিশের অস্ত্রসজ্জিত গাড়ি, মোটরবাইক, নদীতে অস্ত্রবাহী নৌযান নিয়ে টহল চলছে। সতর্কতার অংশ হিসেবে এই কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলেই জানিয়েছে পুলিশ।

স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড পিস্তল, আধা স্বয়ংক্রিয় রাইফেল নিয়ে নতুন একটি এলিট ইউনিট মোতায়েন করেছেন। গত রাতে নগরের রাসেল স্কয়ারে ধারালো অস্ত্রধারী এক যুবক ষাটোর্ধ নারীকে হত্যা করে ও আরও পাঁচজনকে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যায়।

এদিকে হামলার একদিন আগেই লন্ডনে নতুন সন্ত্রাস-বিরোধী এলিট ইউনিট নামায় কর্তৃপক্ষ।

মেট্রোপলিটন পুলিশের সহকারী কমিশনার মার্ক রাওলি ঘোষণা দিয়েছেন, নগরের সড়কগুলোতে আরও পুলিশ দেখা যাবে। ওই হামলার প্রেক্ষিতেই পূর্ব সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে এদের মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

রাসেল স্কয়ারের যে স্থানটিতে নিহত নারীসহ ছয়জনের ওপর হামলা হয় সেখানটিতেই ২০০৫ সালের ৭ জুলাই বোমা হামলার দিনে একটি বোমা বিষ্ফোরিত হয়েছিলো। সে হামলায় ২৬ জনের প্রাণহানি ঘটে।

You Might Also Like