প্রথম নারী গভর্নর পেতে যাচ্ছে টোকিও

জাপানের রাজধানী টোকিওতে এই প্রথমবার কোনো নারী গভর্নর হতে যাচ্ছেন। কেন্দ্রফেরত জরিপে বলা হচ্ছে, ইউরিকো কোইকে গভর্নর নির্বাচিত হতে চলেছেন। তিনি দেশটির প্রাক্তন প্রতিরক্ষমন্ত্রী ছিলেন।

বিবিসি অনলাইনের এক খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

জাপানের স্থানীয় সময় রোববার রাত ৮টায় ভোগ্র গ্রহণ শেষ হওয়ার পর দেশটির জাতীয় সম্প্রচার মাধ্যম এনএইচকে ও অন্যান্য গণমাধ্যম জানিয়েছে, গভর্নর পদে জয়ী হচ্ছেন কোইকে।

কোইকে গভর্নর নির্বাচিত হলে তার সামনে চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াবে আর্থিক সমস্যায় জর্জরিত ২০২০ সালে টোকিও অলিম্পিকের সফল আয়োজন। আর্থিক কেলেঙ্কারীর অভিযোগে আগের দুজন গভর্নরকে পদত্যাগ করতে হয়েছে।

উল্লসিত সমর্থকদের উদ্দেশে ৬৪ বছর বয়সি কোইকে বলেন, অভূতপূর্বভাবে আমি টোকিওর রাজনীতির নেতৃত্ব দেব, এমন টোকিও হবে যা আগে কেউ কখনো দেখেনি।

তিনি আরো বলেন, এই নির্বাচনের ফল যখন থেকে আঁচ করছি, তখন থেকে মনে করছি, নতুন গভর্নর হিসেবে টোকিওর মেট্রোপলিটন সরকারকে আমি সামনের দিকে নিয়ে যাব।

টোকিওর গভর্নর পদে প্রতিদ্বন্দ্বীয় শামিল হন ২১ জন প্রার্থী। তাদের মধ্যে সামনের সারির প্রার্থী হলেন- কোইকে, রাজনীতিবিদ হিরোয়া মাসুদা এবং সাংবাদিক শুনতারো তোরিগোয়ে।

রাষ্ট্রীয় তহবিল অপব্যয়ের অভিযোগে গত মাসে পদত্যাগ করেন গভর্নর ইয়োইচি মাসুজোয়ে। এরপর নতুন নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা হয়।

২০১৩ সালে আর্থিক কেলেঙ্কারীর অভিযোগে আরেক গভর্নর নাওকি ইনোসে পদত্যাগ করেন। এর কিছু দিন আগে অলিম্পিক খেলা আয়োজনের অনুমোদন পায় টোকিও।

You Might Also Like