স্বামীর ওপর শোধ নিতে…

নারীকে খেপালে পরিণতি যে ভালো হয় না, তা যুগ যুগ ধরেই টের পেয়ে এসেছে পুরুষ। আবার অন্যকে ফাঁদে ফেলতে চাইলে নিজেকেই যে সেই ফাঁদে পড়তে হয়, এটাও সত্য।

স্বামীকে শাস্তি দিতে বিমানবন্দরে ফোন করে এক ফরাসি নারী জানিয়েছিলেন, সেখানে থাকা এক ব্যক্তির ব্যাগে বোমা রয়েছে। আর ওই ব্যক্তিটি তার স্বামীই। ভুল তথ্য দেওয়ার অভিযোগে এখন সেই নারীর বিরুদ্ধে ছয় মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন দেশটির আদালত।

ফ্রান্সের অ্যানিসির বাসিন্দা ওই নারীর দাবি, তার স্বামীর সঙ্গে গৃহকর্মীর সম্পর্ক রয়েছে। ওই গৃহকর্মীকে নিয়েই সুইজারল্যান্ডে প্রমোদভ্রমণে যাচ্ছিলেন তার স্বামী। তাই স্বামীর ওপর আক্রোশ মেটাতে গত ২৬ জুলাই জেনেভা বিমানবন্দরে ফোন করে ওই নারী জানান, পরের দিন অর্থাৎ ২৭ জুলাই সুইস বিমানবন্দরে অবতরণ করতে যাচ্ছে এমন এক ব্যক্তির ব্যাগে বোমা রয়েছে। এ ঘটনার পরপর বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ যাত্রীদের ব্যাগে তল্লাশি শুরু করে। বিমানবন্দরের নিরাপত্তা জোরদার করা হয়। এর ফলে অনেক ফ্লাইট বিলম্ব করা হয়। তবে যাত্রীদের তল্লাশি করে কিছুই মেলেনি। পরে ফোনকল ট্র্যাক করে জানা যায়, ওই দিন ফ্রান্সের অ্যানিসি শহর থেকে ফোনটি এসেছিল। ওই নারীকে গ্রেপ্তারের পর ২৮ জুলাই তাকে আদালতে হাজির করা হয়।

আদালতে ৪১ বছরের ওই নারী বলেন, ‘ওই নারীর (গৃহকর্মী) জন্য সমস্যা সৃষ্টি করাই আমার একমাত্র উদ্দেশ্য ছিল। এটা ছিল কেবল প্রতিশোধের চেষ্টা।’

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, স্বামীর সঙ্গে ২২ বছর ধরে সংসার করছেন ওই নারী। তাদের চারটি সন্তানও রয়েছে। আদালত তাকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন।

You Might Also Like