ফুটবল থেকে শোয়েইনস্টাই গারের বিদায়!

বিশ্বকাপ জয়ী জার্মানির তারকা মিডফিল্ডার বাস্তিয়ান শোয়েইনস্টাইগার আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে বিদায়ের ঘোষণা দিয়েছেন। দীর্ঘ ১২ বছরের ফুটবল ক্যারিয়ার থেকে অবসর নিলেন ৩১ বছর বয়সী এই জার্মান তারকা।

এবারের ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপের আসরে জার্মানিকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন শোয়েইনস্টাইগার। দেশের জার্সি গায়ে তিনি খেলেছেন ১২০টি ম্যাচ। যা জার্মানদের হয়ে চতুর্থ সর্বোচ্চ ম্যাচ খেলার রেকর্ড। তার উপরে রয়েছেন ১৫০ ম্যাচ খেলা লোথার ম্যাথুজ, ১৩৭ ম্যাচ খেলা মিরোস্লাভ ক্লোসা এবং ১২৯ ম্যাচ খেলা লুকাস পোডলস্কি।

২০০৪ সালে জাতীয় দলের হয়ে অভিষেক হয় শোয়েইনস্টাইগারের। ২০১৪ সালের ব্রাজিল বিশ্বকাপ জয়ী এই তারকা দেশের জার্সি গায়ে গোল করেছেন ২৪টি। ২০০৫ সালের ফিফা কনফেডারেশন কাপে তৃতীয় স্থান পেয়েছিল তার দল। ২০০৮ সালে জাতীয় দলের হয়ে খেলে শোয়েইনস্টাইগার উয়েফা ইউরোপিয়ান ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের আসরে রানার্সআপ শিরোপার স্বাদ নিয়েছিলেন।

অবসরের ঘোষণা দেওয়া শোয়েইনস্টাইগার জানান, ‘কিছু দিন আগে জাতীয় দলের কোচকে বলেছি আমাকে যেন দলের অংশ হিসেবে তালিকায় না রাখা হয়। দেশের হয়ে ১২০টি ম্যাচ খেলেছি। জাতীয় দলের হয়ে অসাধারণ কিছু মুহূর্ত উপভোগ করেছি। চেয়েছিলাম এবারের ইউরো শিরোপা জিততে। কিন্তু, সেটি পারিনি। তবে, ২০১৪’র বিশ্বকাপ শিরোপা আমার ফুটবল ক্যারিয়ারের জন্য সবথেকে স্মরণীয় মুহূর্ত হয়েই থাকবে।’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘২০১৮ বিশ্বকাপে জার্মানি ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন হিসেবে নামবে। এটাই আমার সঠিক সময় জাতীয় দল থেকে অবসর নেওয়ার। তরুণ আর উঠতি ফুটবলারদের জায়গা ছেড়ে দিতে হবে। আসন্ন বিশ্বকাপে জার্মানদের জন্য প্রাথর্ণা করছি। আমার বিশ্বাস তারা বেশ ভালো ফল করবে। আপাতত আমি পরিবারকে সময় দিতে চাই। তবে, জাতীয় দলে না থাকলেও আমি তাদেরই অংশ। তাদের সঙ্গে সব সময় আমার পূর্বের মতোই শক্ত সম্পর্ক থাকবে।’

সব সময় পাশে থাকার জন্য সমর্থকদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন বায়ার্ন মিউনিখের সাবেক এই তারকা। ২০১৫ সালে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের জায়ান্ট ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে নাম লেখানো শোয়েইনস্টাইগার জার্মান ক্লাবটির হয়ে খেলেছেন ৫০০টি ম্যাচ। ক্লাব ক্যারিয়ারে তিনি প্রতিপক্ষের বিপক্ষে ৫৬৬টি ম্যাচে মাঠে নামেন।

You Might Also Like