ফেনীতে গণধর্ষণ ও ডাকাতি মামলার ২ আসামি অস্ত্রসহ গ্রেফতার

ফেনীর সোনাগাজীতে গণধর্ষণ ও ডাকাতি মামলার এজাহারভুক্ত আসামি নুরুল করিম (২২) এবং তাজুল ইসলাম রাহাত (২৩) কে বিপুল পরিমাণ অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৭।

রোববার রাত ১১টা ২০মিনিটের দিকে তাদের মুহুরী প্রজেক্ট রোড থেকে বিপুল পরিমাণ অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৭ এর ফেনী ক্যাম্পের সদস্যরা।

র‌্যাব জানায়, গোপন সংবাদে জানতে পারে ৬/৭জন ডাকাত সোনাগজীর মুহুরী প্রজেক্ট সড়কে ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছিল। র‌্যাব সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছালে ডাকাতেরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে, র‌্যাবও তাদেরকে লক্ষ্য করে পাল্টা গুলি ছোড়ে এবং ঘটনাস্থল থেকে সোনাপুর গ্রামের হোসেন আহম্মদের ছেলে নুর করিম এবং একই এলাকার তাজুল ইসলাম রাহাতকে আটক করে। এসময় তাদের কাছ থেকে ২টি ওয়ান শূটার গান, ৩ রাউন্ড গুলি, ২টি ছুরি, ১টি চাপাতি এবং ২টি টর্চলাইট উদ্ধার করা হয়। আটককৃত করিম ও রাহাত গণধর্ষণ ও ডাকাতি মামলার এজাহারভুক্ত আসামি।

প্রসঙ্গত, ফেনীর লালপুলে শনিবার সন্ধ্যায় ফেনী-৩ আসনের সংসদ সদস্য হাজী রহিম উল্যাহর গাড়ি বহরের মাইক্রোবাস (ডিএম-জিএ-১৪৫৯৬২) গাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে র‌্যাব সদস্যরা গাড়িতে থাকা আবু বক্কর ছিদ্দিক সাগর (২৩), একরামুল হক সাব্বির (২৩) এবং ইকবাল হোসেন জহির (২২) কে আটক করে।

তাদের বিরুদ্ধেও গণধর্ষণ ও ডাকাতি মামলা এবং সোনাগাজী থানায় একাধিক নিয়মিত মামলাসহ গ্রেফতারি পরোয়ানা রয়েছে। তারা র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে দায় স্বীকার করে ঘটনায় জড়িত অপরাপরদের নাম প্রকাশ করেছে এবং রোববার তাদেরকে আদালাতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

র‌্যাব-৭ ফেনী ক্যাম্পের ইনচার্জ স্কোয়াড্রন লিডার সাফায়েত জামিল ফাহিম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের পূর্বক গ্রেফতারকৃত দু’আসামিকে সোনাগাজী মডেল থানায় হস্তান্তর করা হবে।

You Might Also Like