সারা দেশের সঙ্গে দিনাজপুরের বাস যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন

মটর পরিবহণ শ্রমিক ইউনিয়নের অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটের কারণে সারা দেশের সঙ্গে দিনাজপুরের বাস যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ফলে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন সাধারণ মানুষ। গত বুধবার থেকে শুরু হওয়া ধর্মঘট ৩ দিনে গড়িয়েছে। কিন্তু এখনও সরকারের পক্ষ থেকে তেমন কোনও সফল উদ্যোগ নেয়া হয়নি। এর ফলে সাধারণ জনগণের উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা দিন দিন বেড়েই চলেছে।

ধর্মঘটের ব্যাপারে জানতে চাইলে শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পদক মো. রাব্বি জানান, শুক্রবার রাতে দিনাজপুর মটর পরিবহন মালিক গ্রুপের কার্যালয়ে জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম  শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে প্রায় ২ ঘণ্টা আলোচনা করেছেন। তবে সেখানে কোনো সমঝোতা হয়নি।

উল্লেখ্য, হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস ভাংচুর এবং দুই সহকারীকে মারধরকে কেন্দ্র করে শিক্ষার্থীরা পাল্টা গাড়ি ভাংচুর করলে গত বুধবার রাত থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট কর্মসূচি শুরু করে শ্রমিকরা।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, বুধবার বিকালে শহরের কালীতলা এলাকায় সাগরিকা পরিবহনের একটি বাস হাজী দানেশ বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তাদের বহনকারী বাসে ধাক্কা দেয়। এতে স্টাফ ও কর্মকর্তারা প্রতিবাদ জানালে পরিবহণ শ্রমিকরা ক্ষিপ্ত হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসের দুই সহকারী রাজু ও আরিফকে মারপিট করে। এরপর বিশ্ববিদ্যালয়ের আরো ৪টি বাসে শ্রমিকরা ইট ছুড়লে কর্মচারী ও শিক্ষার্থীসহ অন্তত ৬ জন আহত হন। এর প্রতিক্রিয়ায় শিক্ষার্থীরা সন্ধ্যায় ক্যাম্পাসের সামনে মহাসড়কে অবস্থান নিয়ে টায়ার জ্বালিয়ে দিনাজপুরের সঙ্গে রংপুর ও ঠাকুরগাঁওয়ের সড়ক যোগাযোগ বন্ধ করে দেয় এবং ওই পথ দিয়ে যাওয়া দুটি গাড়ি ভাংচুর করে। এসব ঘটনার পর থেকে সকল রুটে সব ধরনের বাস চলাচল বন্ধ করে দেয় মটর পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন।

You Might Also Like