সিরিজ বোমা হামলায় পাঁচ জেএমবির কারাদণ্ড

সিরিজ বোমা হামলার মামলায় নিষিদ্ধ ঘোষিত জামায়াতুল মুজাহিদীন বাংলাদেশের (জেএমবি) পাঁচ সদস্যকে ১০ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

আজ সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাঙামাটি জেলা যুগ্ম ও দায়রা জজ আজিজুল হক এ রায় ঘোষণা করেন।

২০০৫ সালের ১৭ আগস্ট রাঙামাটিতে তিনটি বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় এ ছয়জনকে গ্রেপ্তার করেছিল পুলিশ।

কারাদণ্ড পাওয়া জেএমবির সদস্যরা হলেন— রাঙামাটির বরকল উপজেলার ওবায়দুর রহমান খায়ের, দিনাজপুরের আরিফুল ইসলাম, চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার আইয়ুব আলী, নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলার মো. আবদুল হাফিজ খলিল ও কক্সবাজারের মো. জাবেদ ইকবাল।

এছাড়া বরকলের মো. রুহুল আমীনকে খালাস দিয়েছে আদালত।

দীর্ঘ শুনানি শেষে রাঙামাটি যুগ্ম ও দায়রা জজ মো. আজিজুল হক রায় ঘোষণা করেন। সাজায় আসামিদের আটকাবস্থার সময় বিবেচনা করা হবে, অর্থাৎ কারাদণ্ড থেকে আটকের সময় বাদ যাবে।

আদালত পরিদর্শক মমিনুল ইসলাম জানান, বিস্ফোরক আইনে এ মামলা দায়ের করা হয়েছিল।

উল্লেখ্য, ২০০৫ সালের ১৭ আগস্ট দেশের ৬৩ জেলার ৪৫০ স্থানে একযোগে বোমা হামলা চালায় জেএমবি। এতে আইনজীবীসহ বেশ কয়েকজন নিহত হন।

এ ঘটনায় ৬৬০ জনকে আসামি করে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ১৫৯টি মামলা দায়ের করা হয়। এসব মামলায় মোট ৪৫৫ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর মধ্যে ৯১টি মামলার বিচার শেষে শীর্ষস্থানীয় তিন নেতার মৃত্যুদণ্ড, ১১২ জনের যাবজ্জীবন এবং ১০১ জনকে নানা মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছে।

পলাতক রয়েছে ফাঁসির তিন আসামিসহ ৭৪ জন সাজাপ্রাপ্ত জঙ্গি। আর এখনো বিচারাধীন আছে ৬৮টি মামলা। নিষ্পত্তি হয়নি প্রায় তিন বছর আগে মৃত্যুদণ্ড মওকুফের জন্য হাইকোর্টে করা ২৯ জঙ্গির আপিল।

সবশেষ গাজীপুরের একটি মামলার রায় আসে গতবছরের ১০ আগস্ট। গাজীপুরের জয়দেবপুর থানার জেএমবির সিরিজ বোমা হামলার ঘটনায় ১৭ জনকে ১০ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

You Might Also Like