১২ হাজার নারীর সঙ্গে যৌন সংসর্গের ছবি তুলে জেলে জাপানি নাগরিক

টানা ২৭ বছর ধরে বারো হাজারেরও বেশি ফিলিপিনো মহিলাকে তিনি শয্যাসঙ্গিনী করেছেন। আর তাঁদের প্রত্যেকের সঙ্গে তাঁর যৌন সংসর্গের ছবি তুলে রেখেছেন- প্রায় লাখ দেড়েক। আর সেই সব ‘রসালো ছবি’ নিয়ে বানিয়েছেন চারশোটি মোটা অ্যালবাম। ওই ‘রসিক’-এর হাত থেকে রেহাই পায়নি ১৪ বছর বয়সের মেয়েরাও।

এখানেই রসিকের কাহিনী শেষ হয়নি। আরও আছে।

তিনি গত দু’বছর ধরে ফিলিপিন্সের একটি হোটেলে ১২ থেকে ১৪ বছর বয়সী ফিলিপিনো মেয়েদের উলঙ্গ ছবি তুলেছিলেন। আর সেই সব ছবি একেবারে সাজিয়ে গুছিয়ে তাঁর ঘরে রেখে দিয়েছিলেন। ঘরে লোকজন এলে তাঁদের সে সব দেখাতেও পিছপা হতেন না ‘রসিককুমার’! যদিও তিনি একেবারেই ‘কুমার’ নন, তাঁর বয়স ৬৫। জাপানি। নাম- উহেই তাকাশিমা।

এই সব কীর্তি-কা-ের জন্য তাকাশিমাকে দু’বছরের সশ্রম কারাদ- দিয়েছে জাপানের ইয়োকোহামা জেলা আদালত।

জানেন কি, আদালতে কী বলেছেন, তাকাশিমা?

বলেছেন, স্যর, আমার সব কিছুই জমানোর স্বভাব। যাদের সঙ্গে যৌন সংসর্গ করেছি, তাদের কাউকেই ভুলতে চাইনি। তাই সকলের সঙ্গে আমার যৌন সংসর্গের ছবি তুলে রেখেছি। আর সে সব যত্ম করে রেখে দিয়েছি অ্যালবামে।-আনন্দবাজার

You Might Also Like