সরকারকে প্রকৃচির সাতদিনের আল্টিমেটাম

জাতীয় বেতনস্কেলের মাধ্যমে সরকারি চাকরিতে সৃষ্ট বৈষম্যমুলক সিদ্ধান্ত বাতিল এবং বিরাজমান্য অন্যান্য বৈষম্য নিরসনের দাবি করেছেন প্রকৌশলী, কৃষিবিদ চিকিৎসক (প্রকৃচি) এবং ২৬ ক্যাডার ও বিভিন্ন ফাংশনাল সার্ভিসের কর্মকর্তারা।

এ সময় তারা সরকারকে সাতদিনের সময়সীমা বেঁধে দেন। যদি ৩০ ডিসেম্বরের মধ্যে দাবি মানা না হয় তাহলে লাগাতার আন্দোলনের হুমকি দেন।

বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবে এক মানববন্ধন কর্মসূচিতে এ দাবি তুলে ধরেন তারা।

এ সময় তারা বলেন, ২৪ ডিসেম্বর সকাল ১০টায় কৃষিবিদ ইনস্টিটিউটে জমায়েত হয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি প্রদান করা হবে। ২৭ থেকে ৩০ ডিসেম্বর প্রতিদিন দুপুর ১২টা থেকে ১টা পর্যন্ত একঘন্টার কর্মবিরতি পালন করা হবে। তবে আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে যে সব কর্মকর্তা দায়িত্বপ্রাপ্ত হয়েছেন, তারা এ কর্মসূচির বাইরে থাকবেন। ৩০ ডিসেম্বরের মধ্যে দাবি মানা না হলে লাগাতার কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।

এ সময় তারা জানান, আজ (বুধবার) সারাদেশে এক ঘন্টার মানব বন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। কেন্দ্রীয়ভাবে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে প্রকৃচি-বিসিএস সমন্বয় কমিটির স্টিয়ারিং কমিটির সদস্য ও বিএমএ’র সভাপতি অধ্যাপক ডা. মাহমুদ হাসান সভাপতিত্ব করেন।

You Might Also Like