ছিনতাইকালে জনতার হাতে পুলিশ আটক

সিলেট নগরীর বারুতখানা এলাকায় এক মহিলার টাকা ছিনতাই করে পালিয়ে যাওয়ার সময় ছিনতাইকারি এক পুলিশ সদস্যকে আটক করেছে স্থানীয় জনতা। আটককৃত ছিনতাইকারি পুলিশ সদস্যের নাম শরীফ রানা। সে সিলেট জেলা পুলিশের মোটরযান সেকশনের কনস্টেবল। আজ দুপুর দেড়টার দিকে ছিনতাইয়ের এ ঘটনা ঘটে। ছিনতাইয়ের শিকার মহিলার নাম তামান্না আক্তার কলি। তিনি ধোপাদিঘীর পাড় আল ফালাহ্ টাওয়ারের বাসিন্দা আনসার আলীর মেয়ে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বেলা পৌণে ১টার সময় তামান্না আক্তার কলি তালতলাস্থ ইসলামী ব্যাংক থেকে ২ লাখ টাকা তুলে তার ভাইয়ের সঙ্গে পূর্ব জিন্দাবাজার ব্র্যাক ব্যাংকে জমা দিতে রিকশাযোগে যাচ্ছিলেন। এ সময় তারা বারুতখানাস্থ পয়েন্টে এসে পৌঁছুলে একটি মোটর সাইকেল তিন ছিনতাইকারী তাদের গতিরোধ করে। তার সঙ্গে ব্যাগে থাকা দু’লাখ টাকা ছিনিয়ে নেয়। এসময় তার চিৎকারে স্থানীয় জনতা এগিয়ে আসলে ছিনতাইকারি বারুতখানার দিকে দৌঁড় দেয়। পালানোর সময় আশেপাশের সিকিউরিটি গার্ড ও জনতা তাকে ধরে ফেলেন। পরে তাকে পুলিশের হাতে সোপর্দ করা হয়। কোতয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সোহেল আহমদ জানান, বেলা দেড়টার দিকে বারুতখানা পয়েন্টে এক মহিলার কাছ থেকে ছিনতাই করে পালিয়ে যাওয়ার সময় এক যুবককে আটক করে জনতা। পরে পুলিশে খবর দিলে পুলিশ ছিনতাইকারিকে থানায় নিয়ে আসে। থানায় আসার পর সে পুলিশ সদস্য বলে জানায়। ওসি সোহেল আরো জানান, কনস্টেবল শরীফ রানাকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। জিজ্ঞাসাবাদে রানার সঙ্গীদের পরিচয় ও টাকা উদ্ধারে তৎপরতা চালাচ্ছে পুলিশ।

You Might Also Like