গাজীপুরে স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীর যাবজ্জীবন

স্বামীকে কুপিয়ে হত্যার দায়ে স্ত্রীকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

 

বুধবার দুপুরে গাজীপুরের জেলা ও দায়রা জজ একেএম এনামুল হক এ রায় প্রদান করেন। একই সঙ্গে আসামিকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ১ মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

 

দণ্ডপ্রাপ্ত ওই স্ত্রীর নাম চাঁদ সুলতানা (৪১)। তিনি মাগুরার শ্রীপুর থানার হরিন্দি গ্রামের মৃত আব্দুল লতিফ মিয়ার মেয়ে।

 

গাজীপুর জজ কোর্টের পিপি মো. হারিছ উদ্দিন আহামদ জানান, চাঁদ সুলতানা তার স্বামী নজরুল ইসলাম ও এক প্রতিবন্ধী মেয়েকে নিয়ে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ভোগড়া বাইপাস এলাকার আব্দুল হালিমের বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। ২০১০ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি পারিবারিক কলহের জের ধরে চাঁদ সুলতানা তার স্বামী নজরুল ইসলামকে কুপিয়ে হত্যা করে। পর দিন পুলিশ লাশ উদ্ধার করে এবং নিহতের ভাগিনা ইদ্রিস মিয়া বাদী হয়ে জয়দেবপুর থানায় মামলা দায়ের করেন।

 

তিনি আরো জানান, পরে পুলিশ চাঁদ সুলতানাকে গ্রেফতার করে। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জয়দেবপুর থানার এসআই মো. শহীদুল্লাহ তদন্ত শেষে ২০১০ সালের ৩১ জুলাই আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। ২০১১ সালের ৮ মে আদালতে অভিযোগপত্র গৃহিত হয়।

 

শুনানি শেষে বুধবার গাজীপুরের জেলা ও দায়রা জজ একেএম এনামুল হক স্বামী হত্যায় দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় চাঁদ সুলতানাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ১ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন।

 

রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন পিপি মো. হারিছ উদ্দিন আহামদ। আসামিপক্ষে ছিলেন মো. আব্দুস সোবাহান ।

 

You Might Also Like