ধর্ষককে হত্যার পর যৌনাঙ্গ কেটে রান্না করে খেল দম্পতি

ইন্দোনেশিয়ায় স্ত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষককে হত্যার পর তার যৌনাঙ্গ কেটে রান্না করে খাওয়ার অভিযোগে এক দম্পতিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মঙ্গলবার দেশটির পুলিশ এ তথ্য জানিয়েছে।

 

পুলিশ জানায়, গত সেপ্টেম্বরে এক তরুণীকে বিয়ে করে ৩০ বছরের রুদি এফেন্দি। বিয়ের রাতে নববধূ জানায় সে কুমারি নয় এবং তাকে এক ট্রাক চালক ধর্ষণ করেছিল। এতে ক্ষিপ্ত রুদি ধর্ষককে হত্যার সিদ্ধান্ত নেয়।

 

রুদি সাংবাদিকদের বলেন, ‘ আমি প্রচণ্ড ক্ষিপ্ত হয়েছিলাম । মাথাব্যাথা কমাতে আমি ধর্ষকের যৌনাঙ্গ কেটে খাওয়ার সিদ্ধান্ত নেই।’

 

পুলিশ জানায়, গত অক্টোবরে এফেন্দি তার স্ত্রীকে বলে সে যেন ওই ট্রাক চালককে ফোন করে একাকী আসতে বলে। প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী ওই ট্রাক চালক এলে তাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করে এবং তার যৌনাঙ্গ কেটে নেয়। হত্যাকাণ্ডের পর ওই ট্রাকটিতে অগ্নিসংযোগ করে এফেন্দি। সে নিহতের কর্তিত যৌনাঙ্গ বাসায় নিয়ে  এসে তার স্ত্রীকে রান্না করতে বলে। পরে তারা দুজন মিলে এটি খায়। এ ঘটনার পর তদন্ত শেষে পুলিশ এফেন্দি ও  তার স্ত্রীকে গ্রেফতার করে।

You Might Also Like