কানাডা বিএনপির বিপ্লব ও সংহতি দিবস উদযাপন : ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ঘোষণা

কানাডা বিএনপি’র সকল নেতাকর্মী একত্রিত হয়ে জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস পালন করেছে। গত রবিবার মন্ট্রিলের একটি রেষ্টুরেন্টে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মীর উপস্থিতিতে দিবসটি পালিত হয়। জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস উদযাপন কমিটির আহবায়ক এজাজ আক্তার তৌফিক এবং সদস্য সচিব মোঃ মমিনুল হক ভুইয়া সমগ্র কানাডার বিএনপি নেতাদের উক্ত অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণের বিষয়টি সমন্নয় করেন।

পবিত্র কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে শুরু অনুষ্ঠান। এরপর বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করা হয়। তারপর পরিবেশিত হয় বিএনপির দলীয় সঙ্গীত।

বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নামে আবারও গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করায় তীব্র প্রতিবাদের মধ্য দিয়ে শুরু হয় আলোচনা অনুষ্ঠান। বিএনপির জাতীয় নেতাদের মিথ্যা মামলায় হয়রানির বিষয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন বক্তারা। জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবসের তাৎপর্য নিয়ে আলোচনা করেন উপস্থিত নেতৃবৃন্দ।

এসময় বক্তারা বলেন, আভ্যন্তরীন কোন্দল ও বহুধাবিভক্তির ফলে দলের ক্ষতি হচ্ছে। দলের বৃহত্তর প্রয়োজনে বক্তারা দেশে-বিদেশে সবাইকে একতাবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান।

এসময় কানাডার রাজধানী অটোয়া বিএনপির সভাপতি সৈয়দ ফারুক আনোয়ার মিন্টু তার কমিটিতে কোনো কোন্দল না থাকলেও কমিটি ভেঙ্গে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন। তিনি বলেন, আজ থেকে আমি বিএনপির একজন সাধারণ সদস্য। আগামীতে যারা নেতৃত্বে আসবেন তাদের সাথে একযোগে কাজ করবো। দলের প্রয়োজনে, ম্যাডাম খালেদা জিয়া ও দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেশি-বিদেশি চক্রান্ত মোকাবেলায় যেকোনো আন্দোলনে এক সাথে কাজ করবো। এরপর একে একে টরেন্টো, মন্ট্রিলের সব গ্রুপের নেতারা একাত্মতা ঘোষণা করে সকলে নিজেদের পদবী বাদ দিয়ে অটোয়ার কমিটি ভেঙ্গে দেয়ার বিষয়টিকে স্বাগত জানান। তারা নিজেরাও সাধারন সদস্য হয়ে যান। শিগগির কাউন্সিলের মাধ্যমে সকলকে নিয়ে কানাডা বিএনপির নতুন কমিটি গঠন করা হবে বলে উপস্থিত নেতৃবৃন্দ জানান।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, মামুনুর রশিদ মামুন, জিয়াউল হক জিয়া, ডাঃ আবিদ বাহার, আবুল বাসার মালেক, মেহেদি ফারুক, রফিকুর রহমান, মাহমুদুল ইসলাম শোভন, দেলোয়ার হোসেন জনি, নুরুন্নবী, জাহাঙ্গীর হক, মাহবুবুল হক লালন, নাসিরুল্লাহ, জয়নাল আবেদিন জামিল, হাফিজুর রহমান, আনসার উদ্দিন, আবদুস সামাদ খান নান্টু,  কাজী জহিরুল ইসলাম জামাল, নবী হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান লাবু, কামরুল হাসান ফারুক, মনিরুজ্জামান খোকন, মোঃ হাফিজুর রহমান লিটন  প্রমুখ।

আলোচনা সভা শেষে মন্ট্রিলের স্থানীয় শিল্পীদের পরিবেশনায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করা হয়। এসময় বিপুল সংখ্যক দলীয় নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন তরফদার মাকসুম ও সিরাজুল ইসলাম মিজি।

You Might Also Like