পশ্চিম তীরে আরেক ফিলিস্তিনিকে হত্যা করেছে ইসরাইলি সেনারা

জর্দান নদীর পশ্চিম তীরে আরেকজন ফিলিস্তিনিকে গুলি করে হত্যা করেছে ইহুদিবাদী ইসরাইলি সেনারা। বুধবার রাতে আল-খলিল (হেবরন) শহরের কাছে ওই ফিলিস্তিনিকে গুলি করে শহীদ করে দখলদার সেনারা।

ইহুদিবাদী বাহিনী দাবি করেছে, নিহত ফিলিস্তিনি গাড়ি চাপা দিয়ে দুই ইসরাইলি পুলিশকে আহত করার পর তাকে হত্যা করা হয়। ইসরাইলি গণমাধ্যম নিহত ফিলিস্তিনির পরিচয় প্রকাশ করে বলেছে, পশ্চিম তীরের তুলকারামের অধিবাসী ওই ফিলিস্তিনির বয়স ২২ বছর।

একজন ইসরাইলি সেনা মুখপাত্রের বরাত দিয়ে ফিলিস্তিনের বার্তা সংস্থা মা’ন জানিয়েছে, আহত দুই পুলিশের একজন সামান্য আহত হয়েছে এবং অন্যজনের অবস্থাও আশঙ্কাজনক নয়।

পশ্চিম তীরের আল-খলিল শহরে প্রায় ২,০০,০০০ ফিলিস্তিনি বসবাস করেন। দখলদার ইসরাইলিরা শহরটিতে অবৈধ বসতি গড়ে বিশ্বের বিভিন্ন স্থান থেকে ধরে এনে শত শত ইহুদিকেও থাকতে দিয়েছে। গত প্রায় এক মাস ধরে শহরটিতে ইহুদিবাদীদের সঙ্গে ফিলিস্তিনিদের সংঘর্ষ চলছে।

গত আগস্ট মাসের শেষদিকে ইহুদিবাদী সেনারা আল-আকসা মসজিদ চত্বরে ফিলিস্তিনি মুসল্লিদের নামাজ পড়তে বাধা দেয়। এরপর থেকে জর্দান নদীর পশ্চিম তীরে ইসরাইল বিরোধী কুদস-ইন্দিফাদা বা কুদস-গণজাগরণ শুরু হয়। গত প্রায় দুই মাসের ইন্তিফাদা চলাকালে কমপক্ষে ৭৪ জন ফিলিস্তিনি ইহুদিবাদীদের হামলায় শহীদ হয়েছেন। এ সময়ে ফিলিস্তিনিদের সঙ্গে সংঘর্ষে ১১ জন ইসরাইলিও নিহত হয়েছে। বার্তা সংস্থা মা’ন আরো জানিয়েছে, বুধবার অধিকৃত ফিলিস্তিন থেকে অন্তত ২৮ জন ফিলিস্তিনি তরুণকে ধরে নিয়ে গেছে দখলদার সেনারা।

You Might Also Like