বিয়ে করে বিশ্ব রেকর্ড, ৩৪ দেশে ৯৪ স্ত্রী

বিয়ে পাগল তিনি। বিয়েতে স্বাদ মেটেনি তার। বিশ্বের আনাচে-কানাচে বিয়ে। ফ্রান্স থেকে ফিনল্যান্ড, জাপান থেকে জার্মান, যুক্তরাষ্ট্র থেকে আর্জেন্টিনা আরো কত না দেশ। কোন দেশে নেই তার স্ত্রী। অ্যামি, অ্যানি, আনা, ফারিয়া, মারিয়া, কেট…আরো কত কত নামের স্ত্রী আছে তার। ৩৪টি দেশের জামাই তিনি।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের যুবতীদের বিয়ে করাটা ব্রিটিশ লাভ বার্ড জন অ্যাড্রেসের শখ। যে টাকাটা রোজগার করেন তিনি মাসে হিসাব কষে কিছুটা নিজের জন্য সরিয়ে রেখে বাকি টাকাটা ৩৪ ভাগে ভাগ করে দেন স্ত্রীদের। ৩৪ স্ত্রীই জানেন যে, তাদের আরো ৩৩ জন সতীন আছে।

জন অ্যাড্রেসের পদবীর মতই ওর প্রেমের কোনো ঠিকানা নেই। ছবি এঁকে বিশ্বভ্রমণ করেন তিনি। জুটিয়ে ফেলেন নতুন প্রেমিকা। সেখান থেকেই বিয়ে। বার্ড জন বলছেন, স্ত্রীদের কাউকে তিনি ঠকান না। প্রেমের বিষয়ে তো নয়ই। তবে বিয়ের আগে নিজের সব প্রেম-পরিণয়ের কথা জানিয়ে দেন।

কিন্তু স্ত্রীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সময় কাকে দেন এমন প্রশ্নে জন বলছেন, জার্মান প্রেমিকা আনার সঙ্গে সময় কাটে তার বেশি। মাসে বড়জোড় তিনি দু-তিনজন স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে পারেন। ১৩ নম্বর স্ত্রীর সঙ্গে তো বছর দুয়েক দেখাই হয়নি তার। তবে চেষ্টা করেন মাসে অন্তত একবার নিজের ৯৪টি স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার।

৩৫ বছর বয়সী বার্ড জন বিয়ে করা শুরু করেন ২৩ বছর বয়স থেকে। ৬ মাস আগে ৯৪তম বিয়েটি করেন তিনি। তবে প্রশ্ন হলো বিয়ের সংখ্যা সেঞ্চুরি কবে হাঁকাবেন তিনি। লাজুক হাসিতে বিষয়টি এড়িয়ে যান জন।

You Might Also Like