ইতিহাস গড়লো বেলের ওয়েলস

ফুটবলে নতুন ইতিহাস গড়লো গ্যারেথ বেলের ওয়েলস। ইউরো ২০১৬‘র চূড়ান্তপর্বের টিকিট হাতে পেলো ওয়েলশরা। ফুটবলের বড় আসরে ওয়েলসকে খেলতে দেখা যাবে দীর্ঘ ৫৭ বছরের বিরতিতে । ফুটবলের বড় মঞ্চে ওয়েলসকে সর্বশেষ দেখা গিয়েছিল ১৯৫৮’র সুইডেন বিশ্বকাপে। তবে শনিবার ম্যাচে হার নিয়ে আনন্দ ভাগাভাগি করলো ওয়েলশরা।

‘বি’ গ্রুপে অ্যাওয়ে ম্যাচে শনিবার বসনিয়া হার্জেগোভিনার কাছে ২-০ গোলে হার দেখে ওয়েলস। গুরুত্বপূর্ণ জয় নিয়ে এতে গ্রুপের তৃতীয়স্থানের আশা ধরে রাখলো বসনিয়ানরা। একই দিন গ্রুপের অপর ম্যাচে হার নিয়ে নিজেদের পথ পিচ্ছিল করেছে ইসরাইল। এদিন নিজ মাঠে ইসরাইলিরা ২-১ গোলে হার দেখেছে সাইপ্রাসের কাছে। ফ্রান্সে মূলপর্বের টিকিট নিশ্চিত করেছে হ্যাজার্ড-ফেলাইনিদের বেলজিয়ামও। প্রতিপক্ষ মাঠে অ্যান্ডোরাকে ৪-১ গোলে হারিয়ে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে উঠলো গোল্ডেন জেনারেশনের বেলজিয়াম।

৯ ম্যাচে বেলজিকদের সংগ্রহ ২০ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ওয়েলসের সংগ্রহ ১৮। গ্রুপের এক ম্যাচ হাতে রেখে বসনিয়ার ১৪ ও ইসরাইলের একাউন্টে রয়েছে ১৩ পয়েন্ট। শনিবার নিজ মাঠে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে অধিনায়ক এডিন জেকোকে ছাড়া খেলতে নামে বসনিয়া। হাঁচুর ইনজুরিতে ভুগছেন ম্যানচেস্টার সিটি থেকে এবারের দলবদলে ধারে (লোন) এএস রোমায় পাড়ি দেয়া স্ট্রাইকার জেকো। আর ম্যাচ শেষে ওয়েলস কোচ ক্রিস কোলেমান বলেন, খেলোয়াড় বা কোচ হিসেবে শুধু নয়, একজন সমর্থক হিসেবে ফুটবলের বড় মঞ্চে ওয়েলসকে দেখতে চাইছিলাম সেই ছেলেবেলা থেকেই। স্বপ্ন সত্যি হলো। দ্বিতীয়ার্ধে আমার একটু নড়বড়ে হয়ে পড়েছিলাম। তবে কারণটাও স্পষ্টই।

ওয়েলসের রিয়াল মাদ্রিদ স্ট্রাইকার ও বিশ্বের সবচেয়ে দামি ফুটবলার গ্যারেথ বেল বলেন, সেই ছোট বেলা থেকেই এমন স্বপ্ন দেখছিলাম। আমার ক্যারিয়ারের বিশেষ মুহূর্ত এটি। তবে আমার এখানেই আটকে থাকছি না। ফ্রান্সে মূলপর্বে কাজ বাকি আমাদের। এখন আমরা স্বস্তির নিঃশ্বাস নিতে পারি। মুহূর্তটা উপখোগ করতে পারি। সেরা দলগুলোর বিপক্ষে পরীক্ষার সুযোগ পাচ্ছি আমরা। ওয়েলসের আর্সেনাল মিডফিল্ডার অ্যারন রামসে বলেন, আমার বিশ্বের ছোট্ট একটি জাতী। কিন্তু ইতহাস গড়লাম আমরা। সমর্থকদের ধন্যবাদ । ফ্রান্সে দেখা হবে।

এর আগে একবারে কাছ থেকে দুইবার স্বপ্নভঙ্গ হয় ওয়েলশদের। ১৯৯৩ সালে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে রুমানিয়ার বিপক্ষে পেনাল্টি মিস করেন ওয়েলস তারকা পল বডিন। যুক্তরাষ্ট্রে ১৯৯৪’র বিশ্বকাপের মূল পর্বের স্বপ্ন ভাঙে ওয়েলসের। ১০ বছর পর ওয়েলশদের ফের মন ভাঙে প্লে অফে রাশিয়ার কাছে হার নিয়ে। এতে ওয়েলস ছিটকে পড়ে ২০০৪‘র ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইপর্ব থেকে।

You Might Also Like