এবার হিলারিকে লক্ষ্য করে জুতা

লাস ভেগাসের একটি হোটেলে বক্তৃতা করছিলেন সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটন। হঠাত্ করে শাঁইশাঁই করে ছুটে এল একপাটি উড়ন্ত জুতা। হিলারি চট করে মাথা সরিয়ে আঘাত এড়ালেন। চালিয়ে যেতে লাগলেন বক্তৃতা।

গত বৃহস্পতিবার এ ঘটনা ঘটে বলে মার্কিন গোয়েন্দা সূত্রে জানা গেছে। খবর রয়টার্সের।

যুক্তরাষ্ট্রের সিক্রেট সার্ভিসের মুখপাত্র জর্জ ওগিলভি জানান, একজন নারী ওই জুতা ছোড়েন। ম্যানডালে বে হোটেলে ওই দিন হিলারি ক্লিনটনের বক্তৃতায় আমন্ত্রিত অতিথি ছিলেন না ওই মহিলা। জুতা ছোড়ার ঘটনাটি ঘটার আগে গোয়েন্দা কর্মকর্তা ও হোটেলের নিরাপত্তার দায়িত্বে নিয়োজিত ব্যক্তিদের নজরে পড়েন তিনি।

ওগিলভি বলেন, ‘গোয়েন্দা কর্মকর্তা ও হোটেলের নিরাপত্তা কর্মকর্তারা তাঁর দিকে এগিয়ে যেতে থাকলে তিনি হিলারিকে লক্ষ্য করে একটি জুতা ছুড়ে মারেন। শিগগিরই তাঁকে আটক করা হয়।’

কেটিএনভি-টিভিতে প্রচারিত ফুটেজে দেখা যায়, হিলারি (৬৬) মঞ্চে দাঁড়ানো অবস্থায় মাথা সরিয়ে তাঁর দিকে ছুটে যাওয়া একটি বস্তুর আঘাত এড়ান।

ওই হোটেলে হিলারি ধাতব পুনঃপ্রক্রিয়াকরণ নিয়ে এক সম্মেলনে ভাষণ দিচ্ছিলেন। দ্য লাস ভেগাস-রিভিউ জার্নাল পত্রিকায় প্রকাশিত খবরে জানানো হয়, ঘটনার পর হিলারি তাঁর বক্তৃতা চালিয়ে যান এবং জুতা ছোড়ার ঘটনাটি নিয়ে রসিকতা করেন। সমাবেশে প্রায় এক হাজার লোক উপস্থিত ছিল।

রাজনৈতিক নেতাদের প্রতি জুতা ছুড়ে প্রতিবাদের ঘটনা এখন বিশ্বের অনেক দেশেই ঘটছে। ২০০৮ সালে বাগদাদে ইরাকি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে একটি সংবাদ সম্মেলনে ভাষণ দেওয়ার সময় তত্কালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জর্জ ডব্লিউ বুশকে লক্ষ্য একজন ইরাকি জুতা ছুড়েছিলেন। তিনিও সেই আঘাত এড়িয়ে যেতে সক্ষম হন। মূলত ওই ঘটনার পর থেকে বিভিন্ন দেশে এমন ঘটনা ঘটছে।

You Might Also Like