চাঁদা দাবিকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, হিজড়া নিহত

চাঁদা দাবিকে কেন্দ্র করে নোয়াখালী জেলার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় বিয়ে বাড়িতে হিজড়া ও গ্রামবাসীর সংঘর্ষে লাকি আক্তার (২৫) নামে এক হিজড়ার মৃত্যু হয়েছে।
রোববার (১২ জুলাই) দুপুর ২টার দিকে উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের নতুনহাট এলাকার পাটোয়ারী মিয়ার বিয়ে বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।
সংঘর্ষে আরো ছয় জন আহত হয়েছেন। তারা হলেন- সোনালী (২৪), সোহাগী (২৮), চুমকি, (২২) মল্লিকা, (২৫) জাহাঙ্গীর (২২), মনোয়ারা (২৬)। তাদের উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বিভিন্ন সময় হিজড়ারা বিয়েসহ বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠানে চাঁদাবাজি করে আসছে। চাঁদা না দিলে বিভিন্ন সময়ে হামলা ভাঙচুরসহ নানা অপকর্ম করে আসছিল তারা।
রোববার দুপুরে স্থানীয় পাটোয়ারী মিয়ার বিয়ে বাড়িতে এসে চাঁদা দাবি করে তারা। চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় হিজড়ারা বাড়ির লোকজনের ওপর হামলা চালায়।
এ সময় বিয়ে বাড়ির লোকজনের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে হিজড়াদের ওপর হামলা চালায়। একপর্যায়ে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেধে যায়। এতে লাকি আক্তার নামে এক হিজড়ার মৃত্যু হয়।
কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাজিদুর রহমান সাজিদ বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, হিজড়াদের অত্যাচারে দীর্ঘ দিন ধরে এলাকার লোকজন অতিষ্ঠ হয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান ওসি।

You Might Also Like