কুমিল্লা জেলা সোসাইটির অভিষেক উদযাপন

বিপুল সংখ্যক প্রবাসী কুমিল্লাবাসী অতিথিদের উপস্থিতিতে কুমিল্লা জেলা সোসাইটি’র অভিষেক ২০১৪ অনুষ্ঠিত হয় জ্যাকসন হাইটস্্স্থ পালকি পার্টি সেন্টারে। তিন পর্বের সাজানো অনুষ্ঠানের প্রথম পর্বে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের বিগত সভাপতি ও প্রধান উপদেষ্টা মোঃ মনির হোসেন। শুরুতেই কোরআন থেকে তেলোওয়াত করেন সংগঠনের সহ-সভাপতি মোঃ কবির হোসেন। বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় সঙ্গীত এবং ৫২ থেকে অদ্যবধি দেশের সকল শহীদদের স্মরণে দাড়িয়ে সম্মান প্রদর্শন করা হয়। নব নির্বাচিত কার্যকরী পরিষদ (২০১৪-২০১৫) কে শপথ করান কনসাল জেনারেল মনিরুল ইসলাম, শপথ গ্রহণ করানোর পর বিদায়ী সভাপতি বর্তমান সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নিকট দায়িত্ব হস্তান্তর করেন। বিদায়ী সভাপতি মোঃ মনির হোসেন তার বক্তৃতায় সকলকে ঐক্যবদ্ধ থাকার জন্য আহবান জানিয়ে প্রথম পর্বের সমাপ্তি ঘোষনা করেন।
DSC_0053
দ্বিতীয় পর্বের সভাপতিত্ব করেন নব নির্বাচিত সভাপতি আমিনুল ইসলাম চৌধুরী। সম্পূর্ন অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন সংগঠনের সাধারন সম্পাদক জসিম উদ্দিন সরকার ও সহ-সাধারণ সম্পাদক ওয়াসিম উদ্দিন ভূইয়া। প্রধান অতিথি আসন অলংকৃত করে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের নিযুক্ত কনসাল জেনারেল ও বৃহত্তর কুমিল্লার কৃতি সন্তান মনিরুল ইসলাম। উনি বিশেষভাবে দ্বৈত নাগরিকত্ব গ্রহণ করার জন্য এবং প্রবাসী বাংলাদেশীদের কে মনে প্রানে বাঙালী থাকার জন্য উদাত্ত আহবান জানান। বিশেষ অতিথি হয়ে বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র বিএনপি প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও কেন্দ্রীয় বিএনপি’র চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ও বৈদেশিক দূত বিশিষ্ট চিকিৎসক ডাঃ মজিবুর রহমান মজুমদার। প্রবাসী কুমিল্লাবাসীর সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে থেকে কুমিল্লার সুনাম অক্ষুন্ন রাখার জন্য বিশেষ আহবান জানান। উনার কথার রেশ ধরে সকল বিশেষ অতিথি কুমিল্লাবাসীর ঐক্যের এবং সুনাম অক্ষুন্ন রাখার বিশেষ আহবান জানান। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহিম হাওলাদার, বাংলাদেশ সোসাইটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক রানা ফেরদৌস চৌধুরী, বাংলাদেশ সোসাইটির সমাজকল্যাণ সম্পাদক ও ব্র্যাক্ষণবাড়িয়া সোসাইটির সাবেক সভাপতি কাজী তোফায়েল ইসলাম, বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সভাপতি আজাদ বাকির, সাবেক সভাপতি ইমদাদুল হক কামাল, রূপসী চাঁদপুর ফাউন্ডেশনের সভাপতি আমিন খান জাকির, সাবেক সভাপতি ফারুক হোসেন মজুমদার, ব্র্যাক্ষণবাড়িয়া কমিউটিটি অব উত্তর আমেরিকার সভাপতি রহিস উদ্দিন, ব্র্যাক্ষণবাড়িয়া সোসাইটির সভাপতি কে. এম. জামান, শাপলা ওয়েলফেয়ারের সভাপতি নূরুল হাসান, মুন্সিগঞ্জ বিক্রমপুরের সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম খান, কুমিল্লা সোসাইটির উত্তর আমেরিকার সাবেক সাধারণ সম্পাদক কাজী আব্দুর রশিদ। অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসেবে আরো উপস্থিত ছিলেন বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির সাধারণ সম্পাদক ইউনুস সরকার, কোষাধাক্ষ্য জাহাঙ্গীর সরকার, কার্যনির্বাহী সদস্য মিয়া মোহাম্মদ দুলাল, নির্বাচন কমিশনার জহির মোল্লা, রূপসী চাঁদপুর ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক মামুন মিয়াজী, সহ-সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব সাহা সহ আরো অনেকে।

DSC_0029

সংগঠনের পক্ষ থেকে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সিনিয়র সহ-সভাপতি বদরুল হক আজাদ। আরো বক্তব্য রাখেন কার্যনির্বাহী সদস্য ও শাপলা ওয়েলফেয়ারের সহ-সভাপতি আবু জাফর ইকরাম, কুমিল্লা জেলা সোসাইটির সহ-সভাপতি কবির হোসেন, সহ-সভাপতি এম. এ. রহিম, কার্যনির্বাহী সদস্য আরশাদ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক নাঈমুল হক ভূইয়া, অর্থ সম্পাদক মনিরুল ইসলাম তুহিন, মহিলা সম্পাদিকা শামীমা রহমান রেখা, ক্রিয়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক সাইফুল আমিন, প্রচার সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, দপ্তর সম্পাদক হাবিবুর রহমান রুমেল ও নির্বাহী সদস্য এম. হক সুমন। সংগঠনের কর্মকর্তা আরো উপস্থিত ছিলেন উপদেষ্টা মওলানা কুতুব উদ্দিন মাহমুদ, এ্যাডভোকেট আশরাফুজ্জামান, খন্দকার মফিজুল ইসলাম, মোঃ আব্দুল হক, ফেরদৌস ফারুক, আনোয়ার হোসেন খান, আবুল কালাম সহ আরো অনেকে।

নব নির্বাচিত সভাপতি তার সমাপনী বক্তব্যে প্রবাসী কুমিল্লাবাসীর উদ্দেশ্য করে বলেন, সংগঠনের নিয়মে সভাপতি এবং সাধারণ সম্পাদক সহ অন্যান্য পদ নির্বাচন করা হয়। আসলে আপনারাই সংগঠনের সভাপতি এবং সাধারণ সম্পাদক। আপনাদের ব্যতীত কার্যকরী কমিটি সম্পূর্ন অচল, আপনারাই সংগঠনের প্রাণ। তাই আসুন সকলে হাতে হাত রেখে, ঐক্যবদ্ধ হয়ে কুমিল্লার সুনাম অক্ষুন্ন রাখি। পরিশেষে সাংস্কৃতিক পর্ব উপভোগ করার এবং নৈশভোজের আহবান জানিয়ে আলোচনা সভার সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

তৃতীয় পর্বে সাংস্কৃতিক পর্বে অংশগ্রহণ করেন প্রবাসী কুমিল্লার কৃতি শিল্পী জিনাত রেহানা রতœা, প্রবাসী শিল্পী আহসান উল্লাহ এবং বাংলাদেশ থেকে আগত ক্ষুদে শিল্পী জিনিয়া মাহবুব। অনুষ্ঠানটি সকলে মুগ্ধ হয়ে উপভোগ করেন এবং রাত ১টায় অনুষ্ঠান শেষ হয়।

You Might Also Like