তিরাহ্‌ উপত্যকার কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ অঞ্চল সন্ত্রাসী মুক্ত করেছে পাক বাহিনী

পাকিস্তান সেনাবাহিনী উপজাতি অধ্যুষিত খাইবার এজেন্সির তিরাহ্‌ উপত্যকার কৌশলগত গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি টিলা ও পর্বত শৃঙ্গ সশস্ত্র উগ্রবাদীদের দখল মুক্ত করেছে। এ সবের মধ্যে গুলাম আলি, তাখাতাকাই এবং নাগরোসা টিলা ও পবর্তশৃঙ্গও রয়েছে।  সেনাবাহিনী এই প্রথমবার ওই এলাকায় ঢুকতে সক্ষম হলো।

 

লড়াইয়ে অন্তত ৮০ জন সন্ত্রাসী নিহত এবং প্রায় ১০০ জন আহত হয়েছে। অন্যদিকে এক সেনা কর্মকর্তাসহ ছয় পাক সেনা নিহত এবং ৩০ জন আহত হওয়ার কথা জানান হয়েছে। নিহত সব সেনার লাশ পেশোয়ারের সামরিক হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এদিকে হাসপাতালের মর্গ থেকে ফিরে আসা এক ব্যক্তি সেখানে ১২টি খালি কফিন দেখতে পাওয়া কথা জানিয়েছেন।

 

দু’দিনের প্রচণ্ড সংঘর্ষের পর এ অঞ্চলটি মুক্ত করে পাক বাহিনী। পাক হেলিকপ্টার গানশীপগুলো সন্ত্রাসীদের সন্দেহজনক আস্তানায় আঘাত হেনেছে। নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গিগোষ্ঠী  লশকরে তৈয়্যবার শক্তিশালী আস্তানা ছিল বিমান হামলার প্রধান লক্ষ্য। হামলায় উগ্রবাদীদের অন্তত পাঁচটি ঘাঁটি পুরোপুরি ধ্বংস হয়ে গেছে।

 

পাক সেনাবাহিনীর আন্তবাহিনী জনসংযোগ বিভাগ আইএসইপিআর’এর বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সেনাপ্রধান জেনারেল রাহিল শরীফ রোববার পেশোয়ার সফর করলে তাকে চলমান সেনা অভিযানের বিষয়ে অবহিত করা হয়। যৌক্তিক পরিণতি না ঘটা পর্যন্ত অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে ঘোষণা করেন জেনারেল শরীফ।

You Might Also Like