আজকের শিশুরা অশিক্ষিত থাকবে না : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আজকের কোনো শিশু অশিক্ষিত থাকবে না। তাদেরকে উপযুক্ত শিক্ষা দিয়ে গড়ে তুলতে হবে। এ জন্য শিক্ষাকেই সব থেকে বেশি গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। এ লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ সরকার।

আজ মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় সমাধিসৌধ কমপ্লেক্সের পাবলিক প্লাজায় মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং জেলা প্রশাসন আয়োজিত শিশু সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, এমন অনেক অভিভাবক আছেন যারা তাদের ছেলেমেয়েদের লেখাপড়া করাতে পারেন না। তাদের সুবিধার্থে সরকার বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, প্রাথমিক শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে, মসজিদভিত্তিক শিক্ষা ব্যবস্থা গড়ে তোলা হয়েছে। ধর্মীয় শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।
শেখ হাসিনা বলেন, ছেলেমেয়েদেরকে বিনামূল্যে বই দেয়া হচ্ছে। প্রাথমিক থেকে সর্বোচ্চ শিক্ষা পর্যন্ত বৃত্তি-উপবৃত্তি চালু করা হয়েছে। এ বছরের জানুয়ারিতে ৩২ কোটি ৬৩ লক্ষ ৭৪ হাজার ৯২৩ খানা বই বিতরণ তরা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, প্রতিটি বিদ্যালয়ে মাল্টি মিডিয়া ক্লাসরুম হচ্ছে। এখন শিশুরা শুধু পড়তেই পারছে না, তারা দেখতেও পাচ্ছে। তাদের প্রযুক্তিভিত্তিক জ্ঞান লাভ করতে হবে। সেইভাবে শিক্ষাব্যবস্থাকে গড়ে তোলা হচ্ছে।

তিনি বলেন, এখন ঝরে পড়া শিশুদের সংখ্যা কমে গেছে। বিদ্যালয়গুলোতে নতুন নতুন ভবন তৈরি হচ্ছে। শিশুরা বিদ্যালয়ে যেতে উৎসাহ পাচ্ছে। জীবনে বড় হতে হলে শিশুদের লেখাপড়া করতে হবে। লেখাপড়া করে মানুষের মতো মানুষ হতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা শিশুদের প্রতি খুবই দরদী ছিলেন। তিনি দরিদ্র শিশুদেরকে নিজের বই দিয়ে সাহায্য করেছেন। ছাতা দিয়ে সাহায্য করেছেন। খাবার দিয়ে সাহায্য করেছেন।

তরুণদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আজকের যারা যুবক-তরুণ তাদের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে গড়ে তুলতে হবে।

You Might Also Like