নেত্রকোনায় স্ত্রীকে হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসি

নেত্রকোনার দুর্গাপুর উপজেলার দুবরাজপুর গ্রামে স্ত্রী শিল্পী আক্তারকে (৩৬) হত্যার অভিযোগে স্বামী আবদুস সালামকে (৪০) মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

 

নেত্রকোনার অতিরিক্ত দায়রা জজ মো. আবদুল হামিদ মঙ্গলবার সকালে আসামির উপস্থিতিতে এই রায় দেন।

 

আদালত সূত্রে জানা গেছে, জেলার দুর্গাপুর উপজেলার দুবরাজপুর গ্রামের মৃত মনসুর আলীর ছেলে আবদুস সালামের সঙ্গে একই গ্রামের মৃত হোসেন আলীর মেয়ে শিল্পী আক্তারের সঙ্গে বিয়ে হয়। তাদের দুটি সন্তান হয়। এর পর থেকে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দাম্পত্য কলহ শুরু হয়। প্রায়ই তাদের মধ্যে ঝগড়া  হতে থাকে।

 

এর জের ধরে গত ২০০৭ সালের ১২ অক্টোবর দুপুরে পিঠা বানানো নিয়ে তাদের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে আবদুস সালাম ধারালো দা দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।

 

ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে শিল্পী মারা যান।

 

এ ঘটনায় মৃতের ভাই শহর আলী বাদী হয়ে ওই দিনই আবদুস সালামের বিরুদ্ধে দুর্গাপুর থানায় হত্যা মামলা করেন।

পুলিশ তদন্ত শেষে ওই বছরের ১২ ডিসেম্বর আসামির বিরুদ্ধে আদালতে চার্জসিট দাখিল করে। বিজ্ঞ বিচারক মো. আবদুল হামিদ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আসামি আবদুস সালামকে গলায় ফাঁস লাগিয়ে মৃত্যুদ- কার্যকরের আদেশ দেন। সরকার পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অতিরিক্ত পিপি অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম প্রদীপ ও আসামি পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল করিম।

You Might Also Like