‘সরকারের অসংযত বক্তব্য পরিস্থিতি উস্কে দিচ্ছে’

বাংলাদেশে রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের অনেকে বলেছেন, বিএনপির নেতৃত্বাধীন জোটের অবরোধে সহিংসতার কৌশল পুরোনো হলেও পেট্রলবোমা হামলার ঘটনাগুলো পরিস্থিতিকে ভয়াবহ করে তুলছে।

সিনিয়র সাংবাদিক আমানউল্লাহ কবির বলেছেন, অতীতেও রাজনৈতিক কর্মসূচিতে সহিংসতা হয়েছে। কিন্তু এবার নিরীহ মানুষের চলাচলের বাসে পেট্রলবোমা হামলার ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় পরিস্থিতি খারাপ হচ্ছে।

এ ধরনের কৌশল নিয়ে বিএনপিতেও বিরোধিতা রয়েছে বলে আমানউল্লাহ কবির উল্লেখ করেন।

বিএনপির নেতৃত্বাধীন জোটের অবরোধ কর্মসূচি চলার ১৫ দিনে পেট্রলবোমা হামলা, যানবাহনে অগ্নিসংযোগসহ নানান ধরনের নাশকতায় এ পর্যন্ত ২৯ জন নিহত হয়েছে।

সেই প্রেক্ষাপটে নাশকতা বা সহিংসতার বিষয় নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা উঠেছে। তবে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ এবং আন্দোলনকারী বিএনপি, দুই পক্ষ সহিংসতার জন্য একে অপরকে দায়ী করছে।

সাংবাদিক আমানউল্লাহ কবির মনে করেন, এ ধরনের সহিংসতা ঘটানোর কাজ যদি বিএনপি কৌশল হিসেবেও নেয়, সেটা জনগণ গ্রহণ করবে না। কারণ এতে নিরীহ মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

তিনি বলেন, সরকার এবং আন্দোলনকারীরা, দুপক্ষই অনড় অবস্থান নেয়ায় পরিস্থিতি বেশি খারাপ হচ্ছে। সরকারের দিক থেকে অসংযত কথাবার্তা এবং উস্কানিমূলক বক্তব্য আন্দোলনকারীদের আরো উস্কে দিচ্ছে।

আমানউল্লাহ কবির মনে করেন, সহিংসতা দীর্ঘস্থায়ী হলে পরিস্থিতি সরকার এবং আন্দোলনকারী, দুপক্ষেরই নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যেতে পারে। সেখানে তৃতীয় শক্তি সুযোগ নিতে পারে, সেটা দেশকে আরো খারাপ অবস্থায় নিয়ে যেতে পারে।

সূত্র: বিবিসি বাংলা

You Might Also Like