রুশ সামরিক ডকট্রিন: ন্যাটোকে প্রধান হুমকি বলে চিহ্নিত

রাশিয়ার নতুন সামরিক ডকট্রিন অনুমোদন করেছেন প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এতে মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো বাহিনীকে রাশিয়ার জাতীয় নিরাপত্তার জন্য প্রধান হুমকি বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

 

আজ (শুক্রবার) প্রেসিডেন্ট পুতিন এ ডকট্রিনে সই করেছেন। এতে আমেরিকার প্রম্পট গ্রোবাল স্ট্রাইক বা পিজিএস ধারণাকে রাশিয়ার জন্য সবচেয়ে বড় নিরাপত্তা হুমকি বলে উল্লেখ করা হয়েছে। পিজিএস হচ্ছে এমন একটি ব্যবস্থা যার আওতায় বিশ্বের যেকোনো সুনির্দিষ্ট লক্ষ্যবস্তুতে পেন্টাগন প্রচলিত অস্ত্র দিয়ে এক ঘণ্টার মধ্যে হামলা করতে পারবে।

 

রুশ নতুন সামরিক ডকট্রিনের মূল বিষয়বস্তু অপরিবর্তিত রয়েছে এবং রুশ সামরিক বাহিনীকে দেশটির নিতান্তই প্রতিরক্ষার হাতিয়ার হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। এর পাশাপাশি মস্কো শত্রুর বিরুদ্ধে একবারে শেষ পর্যায়ে সামরিক বাহিনী ব্যবহারের প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছে। পরমাণু অস্ত্র ব্যবহারের বিষয়ে রাশিয়ার সামরিক নীতিতে কোনো পরিবর্তন আসেনি বরং সামরিক আগ্রাসনের শিকার হলে এবং রাশিয়ার অস্তিত্ব বিপন্ন হওয়ার প্রশ্ন এলে তখনই কেবল পরমাণু অস্ত্র ব্যবহার করা হবে।

 

এদিকে, রাশিয়ার নতুন ডকট্রিনে ন্যাটোকে প্রধান শত্রু হিসেবে গণ্য করার বিষয়টি ন্যাটো নাকচ করে বলেছে, তাদের এমন কোনো তৎপরতা নেই যাতে রাশিয়া শত্রু বলে বিবেচনা করতে পারে বরং ন্যাটো রাশিয়ার জন্য কোনো রকমের হুমকি নয় বলে সংস্থাটি দাবি করেছে।

You Might Also Like