দুশ্চিন্তায় সুন্দরবনের জেলেরা

সুন্দরবনের জেলেরা বলছেন, নদী ও খালে তেল ছড়িয়ে পড়ার কারণে গত কয়েকদিন ধরে কাঁকড়া ও মাছ না পাওয়ায় তারা জাল ফেলা বন্ধ রেখেছেন।

বিশ্বের বৃহত্তম এই ম্যানগ্রোভ বনের শ্যালা নদীতে গত মঙ্গলবার একটি ট্যাংকার ডুবে সাড়ে তিন লাখেরও বেশি লিটার তেল নদী নালায় ছড়িয়ে পড়ায় তারা দুশ্চিন্তার মধ্যে পড়েছেন।দশ বছরেরও বেশি সময় সুন্দরবনের জয়মনি এলাকায় মাছ ধরছেন ইমরান শেখ।তিনি বলেন, “শীত হলো কাঁকড়া, কাইন মাছ, ভেটকি ও পাঙাশের মৌসুম। তেল ছড়িয়ে পড়ার পর মাছ পাওয়া যাচ্ছে না তাই সবার মাছ ধরা বন্ধ”ইমরান শেখ বলেন, মাছের পরিবর্তে বর্তমানে জেলেরা তেল সংগ্রহেই ব্যস্ত আছেন।তার ভাষায়, জেলেরা পানি থেকে তেল সংগ্রহ করে নিজেদের ভবিষ্যৎ বাঁচানোর চেষ্টা করছেন।

“এই তেল নদীতে থাকলে তো মাছ ধরা পুরোটাই বন্ধ হয়ে যাবে। সারা বছর আমরা কি খাব?”সাধারণ সময়ে ওই এলাকায় একজন জেলে দিন প্রতি কমপক্ষে পাঁচশ টাকার কাঁকড়া বা হাজার খানেক টাকার মাছ সংগ্রহ করতে পারেন।“এখন পানির নিচে কিছু আছে কিনা তো বোঝার কোন উপায় নেই”, বলছিলেন ইমরান শেখ।ভবিষ্যতে কি হবে তাই সে নিয়ে দুশ্চিন্তায় তার মতো আরো অনেক জেলে।

You Might Also Like