খেলাফতি মুদ্রা চালু করছে আইএস

ইসলামের তৃতীয় খলিফা হজরত উসমান (রা.)-এর শাসনামলে যে মুদ্রা প্রচলিত ছিল, নিজেদের নিয়ন্ত্রিত এলাকায় সেই আদলে স্বর্ণ, রৌপ্য ও তাম্রমুদ্রা ছাড়তে যাচ্ছে ইসলামিক স্টেট (আইএস)। প্রস্তাবিত স্বর্ণমুদ্রাকে ‘দিনার’ ও রৌপ্যমুদ্রাকে ‘দিরহাম’ বলা হচ্ছে।

আইএসের অনুমোদিত একটি ওয়েবসাইটের বরাত দিয়ে গার্ডিয়ান এ খবর জানিয়েছে।

খবরে বলা হয়, আইএস ইরাক ও সিরিয়ার যে বিস্তীর্ণ এলাকা দখল করেছে, সেখানে কেনাবেচার জন্য এই ধাতব মুদ্রা ব্যবহৃত হবে। আইএসের ‘খলিফা’ আবু বাকার আল বাগদাদি এই ‘ইসলামি দিনার’ প্রচলনের আদেশ দিয়েছেন।

নিজেদের অর্থব্যবস্থা চালু করার বিষয়টি নিশ্চিত করে সুন্নি অনুসারী দলটির পক্ষ থেকে জানানো হয়, তারা ৬৩৪ খ্রিষ্টাব্দে খলিফা ওসমানের চালু করা সোনা ও রুপার মুদ্রার ব্যবস্থা করবে। মুদ্রাগুলো হবে খাঁটি সোনা, রুপা ও তামার তৈরি।

দিনার তৈরি করা হচ্ছে ৪ গ্রাম সোনা দিয়ে। দিরহামে থাকছে ৩ গ্রাম রুপা। গোলাকার এই মুদ্রার উভয় পিঠে খেলাফতের নাম অঙ্কিত থাকবে।

ইতিমধ্যে আইএস তাদের নতুন মুদ্রা ইরাকের মসুল এলাকার বিভিন্ন মসজিদে বিতরণ করা শুরু করেছে বলে জানিয়েছে
বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম।

ইরাক ও সিরিয়ার দখল করা তেলক্ষেত্র থেকে তেল উত্তোলন করে তা কালোবাজারে বেচে দিনে ১০ লাখ ডলার করে আয় করছে আইএস। এই অর্থ দিয়ে তারা চোরাকারবারিদের কাছ থেকে সোনা আর রুপা কিনছে।

You Might Also Like