ভিকারুননিসার ছাত্রীর রহস্যজনক মৃত্যু

রাজধানীর সবুজবাগ থানা এলাকায় ভিকারুননিসা নূন স্কুলের সাদিয়া সালাম শিপুন (১১) নামের ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। সবুজবাগের বাসাবো কদমতলা এলাকায় নিজ বাসায় সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ওড়না দিয়ে ফাঁস দিয়ে সে আত্মহত্যা করেছে বলে জানা গেছে।

সোমবার সন্ধ্যায় শিপুনদের নিজ বাসায় এ ঘটনা ঘটে।

তার চাচাতো ভাই চপল জানান, শিপুন ভিকারুননিসা নূন স্কুলের সিদ্ধেশ্বরী শাখার ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী। বাবা আবদুস সালাম ইতালিতে থাকেন। অনেক বছর হয়ে গেল তিনি দেশে আসেন না। শিপুনের আরো একটি ছোট বোন রয়েছে। শিপুন কিছুদিন হলো এলাকার এক বখাটে ছেলের সঙ্গে প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। পরিবার না মানার কারণেই সে আত্মহত্যা করেছে বলে জানান চপল।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে শিপুনের মা শাহেলা সালাম কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘আমার মেয়ের কোনো অভাব রাখিনি। তার বাবা অনেক দিন দেশে না এলেও প্রতিনিয়ত খোঁজখবর রাখেন। শিপুন একটু বড় হয়েছে। তাই ছোট মেয়েটাকে একটু বেশি সময় দিই। এর ফাঁকে শিপুন এক ছেলের সঙ্গে প্রেমে জড়ায়। প্রেম হতেই পারে। কিন্তু যদি আমাকে খুলে বলত, তবে এমনটা হয়তো হতো না। সে তো কিছু না বলেই গলায় ফাঁস দিল। এখন আমি তার বাবাকে কী বলব?’

তিনি আরো বলেন, বিকেলের দিকে শিপুন ঘরে দরজা লাগিয়ে ঘুমাচ্ছিল। সন্ধ্যার দিকে তাকে ডাকলে ভেতর থেকে দরজা খোলেনি। পরে দরজা ভেঙে দেখি সে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলছে। উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিপুনকে মৃত ঘোষণা করেন।

এদিকে সবুজবাগ থানার এসআই রবিউল ইসলাম জানান, ভিকারুননিসা নূন স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে। মেয়েটি অন্তঃসত্ত্বা বলে জানা গেছে। এ ছাড়া মেয়েটির মা পরকীয়া করেন বলে এলাকাবাসীর অনেকেই জানিয়েছেন। সবকিছু নিয়েই তদন্ত চলছে বলে জানান তিনি।

You Might Also Like