‘ফিলিস্তিনে মার্কিন সমর্থনে অস্ত্র পরীক্ষা চালাচ্ছে ইসরাইল’

ফিলিস্তিনিদের ওপর নতুন অস্ত্রের পরীক্ষা চালানো যাবে বলেই ইহুদিবাদী ইসরাইলকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে আমেরিকা। ইহুদিবাদী ইসরাইলের প্রতি মার্কিন সমর্থনের অন্যতম কারণ তুলে ধরতে গিয়ে এ কথা বলেছেন যুদ্ধ বিরোধী তৎপরতার জড়িত আমেরিকার এক কর্মী। ইরানের ইংরেজি নিউজ চ্যানেল প্রেসটিভিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ কথা বলেছেন তিনি।

‘গ্লোবাল নেটওয়ার্ক অ্যাগেনিস্ট উইপন্স অ্যান্ড নিউক্লিয়ার পাওয়ার ইন স্পেস’ নামের যুদ্ধ বিরোধী সংস্থার সচিব এবং সমন্বয়কারী ব্রুস গ্যাগনন বলেন, এটি পরিস্কার যে ইহুদিবাদী ইসরাইলের সামরিক সক্ষমতা বাড়ানোর বিষয়ে সব সময় আমেরিকা সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে। ফিলিস্তিনি জনগণের ওপর নগর রণক্ষেত্রের পরিবেশে নতুন অস্ত্র প্রযুক্তির মাঠ পর্যায়ের পরীক্ষা সারতে চায় আমেরিকা। আর এটাই হলো ইহুদিবাদী ইসরাইলকে সমর্থন দেয়ার অন্যতম কারণ।

পেন্টাগনের অনুমতির তোয়াক্কা না করেই ইহুদিবাদী ইসরাইলের সেনাবাহিনী আমেরিকা থেকে মারণাস্ত্র হাতিয়ে নিচ্ছে বলে অবহিত হয়েছেন মার্কিন কর্মকর্তারা। এ পরিপ্রেক্ষিতে মার্কিন সরকার তেল আবিবের কাছে অস্ত্র হস্তান্তরের বিষয়ে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করেছে বলে সম্প্রতি খবর দিয়েছে  মার্কিন দৈনিক ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল। এ খবরে বলা হয়েছে, তেল আবিবে হেলফায়ার ক্ষেপণাস্ত্র পাঠানো বন্ধ রাখার জন্য পেন্টাগনকে নির্দেশ দিয়েছে হোয়াইট হাউজ।

হোয়াইট হাউজের এ নির্দেশকে রাজনৈতিক চাল হিসেবে উল্লেখ করে ব্রুস গ্যাগনন বলেন, গাজায় ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে ব্যাপক গণহত্যার পরিপ্রেক্ষিতে বিশ্বব্যাপী যে তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে  সে জন্য এ রাজনৈতিক চালের আশ্রয় নিয়েছে প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার প্রশাসন। তিনি একে পাল দিয়ে নৌকা বাওয়ার সঙ্গে তুলনা করে বলেন, হাওয়ার সঙ্গে তাল মিলিয়ে গতিপথ সাময়িকভাবে একটু পরিবর্তন করতে হয়েছে কিন্তু পরে তা আবার আগের পথেই ফিরে আসবে।

You Might Also Like