সাংবাদিকের চরিত্রে অভিনয় করেছেন সামান্থা রুথ প্রভু

দক্ষিণী সিনেমার কিংবদন্তি অভিনেত্রী সাবিত্রিকে নিয়ে নির্মিত হয়েছে বায়োপিক। ‘নাদিগাইয়ার থিলাগাম’ নামের সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন নাগ অশ্বিন। আগামী ৯ মে তামিল ও তেলেগু ভাষায় মুক্তি পাবে সিনেমাটি। তবে তেলেগু ভাষায় ‘মহানতি’ নামে মুক্তি পাবে এটি।

এতে সাবিত্রির ভূমিকায় অভিনয় করেছেন কীর্তি সুরেশ। অন্যদিকে একজন সাংবাদিকের চরিত্রে অভিনয় করেছেন সামান্থা রুথ প্রভু।

সিনেমাটিতে অভিনয় প্রসঙ্গে সামান্থা বলেন, ‘আমি সিনেমাটির প্রধান চরিত্রে অভিনয় করিনি। তবে আমি বড় ধরনের একটি ঝুঁকি নিয়েছি। এই সিনেমাটির অংশ হতে পেরে আমি গর্বিত। কারণ সাবিত্রি ম্যাডামের মতো আমিও একই পেশায় রয়েছি।’

শুটিংয়ের অভিজ্ঞতা জানিয়ে এ অভিনেত্রী বলেন, ‘একটি দৃশ্যের জন্য আমি ৭-৮ বার টেক দিয়েছি কিন্তু গ্লিসারিন ব্যবহার করিনি। চোখের জল আপনাআপনি চলে এসেছিল। কোনো দৃশ্যের জন্য এর আগে কখনো এমন অনুভূতি হয়নি। কিন্তু এই দৃশ্যটির ক্ষেত্রে আমি খুব আবেগপ্রবণ হয়ে গিয়েছিলাম। সিনেমাটির প্রযোজক ও পরিচালকের প্রতি আমি কৃতজ্ঞা প্রকাশ করছি।’

১৯৩৬ সালে ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে জন্মগ্রহণ করেন সাবিত্রি। ১৯৫০-৬০ দশকে তিনি ছিলেন ভারতের দক্ষিণী সিনেমার জনপ্রিয় একজন অভিনেত্রী। তাকে দক্ষিণের মীনা কুমারিও বলা হতো। ‘দেবদাস’ সিনেমায় পার্বতীর চরিত্রে অভিনয় করে আলোচনায় আসেন সাবিত্রি। এরপর ‘মানামপোলা মঙ্গলায়াম’-এর মতো অনেক দর্শকপ্রিয় সিনেমা উপহার দেন তিনি। প্রায় আড়াইশ সিনেমায় অভিনয় করেছেন এই নায়িকা। ১৯৮১ সালে মাত্র ৪৫ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন সাবিত্রি।

You Might Also Like