‘ব্রিটেন আগুন নিয়ে খেলছে’

জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে রাশিয়া হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছে, ব্রিটেন ‘ভুয়া খবর’ সৃষ্টি করছে এবং ‘আগুন নিয়ে খেলছে’।

লন্ডনে পক্ষত্যাগী রুশ গুপ্তচর সের্গেই স্ক্রিপাল ও তার মেয়েকে রাসায়নিক গ্যাস প্রয়োগে হত্যাচেষ্টার অভিযোগ তুলে ব্রিটেন ও তার মিত্ররা রুশ কূটনীতিকদের বহিষ্কার করে যে সংকট সৃষ্টি করেছে তা নিয়ে আলোচনার জন্য বৃহস্পতিবার জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের বিশেষ অধিবেশন ডেকেছিল রাশিয়া। সেখাইনে এই হুমকি দেন জাতিসংঘে নিযুক্ত রুশ রাষ্ট্রদূত ভাসিলি নেবেনজিয়া।

রুশ রাষ্ট্রদূত বলেছেন, ব্রিটেনের মুখ্য উদ্দেশ্য হচ্ছে, অপ্রমাণিত অভিযোগ তুলে রাশিয়ার মর্যাদাহানি করা এবং আইনভঙ্গকারী হিসেবে তুলে ধরা।

তিনি বলেন, ব্রিটেনের তোলা অভিযোগ ‘ভয়াবহ ও অপ্রমাণিত’। রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুক্তরাজ্য তথ্য সন্ত্রাস চালাচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

রুশ রাষ্ট্রদূত বলেন, নভোচিক নামে রাসায়নিক গ্যাসটি রুশ নামের হলেও এর কপিরাইট রাশিয়ায় করা হয়নি। এটি অনেক দেশই উৎপাদন করেছে।

তিনি ব্রিটেনকে খোঁচা দিয়ে বলেন, ‘এটা এক ধরণের হাস্যরসাত্মক নাটক। আপনারা কি এরচেয়ে ভালো কোনো ভুয়া সংবাদ নিয়ে আসতে পারেননি?’

গত ৪ মার্চ যুক্তরাজ্যের সলসবেরি শহরে একটি রেস্তোরাঁর বাইরে অচেতন অবস্থায় পক্ষত্যাগী প্রাক্তন রুশ গুপ্তচর সের্গেই স্ক্রিপাল ও তার মেয়ে ইউলিয়া স্ক্রিপালকে। পরে জানা যায়, তাদের ওপর নভোচিক নামের এক ধরণের রাসায়নিক গ্যাস দিয়ে হামলা চালানো হয়েছে। আর এই নভোচিক গ্যাসের উদ্ভাবনকারী হচ্ছে রাশিয়া। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে এ ঘটনার জন্য রাশিয়াকে দায়ী করেছেন এবং রাশিয়ার ২৩ কূটনীতিককে বহিষ্কারের নির্দেশ দেন তিনি। এরপর যুক্তরাজ্যের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে ২০টিরও বেশি মিত্র দেশ ৬০ জন রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করে। রাশিয়া অবশ্য এই অভিযোগ বারবার প্রত্যাখ্যান করে আসছে।

You Might Also Like