জম্মু-কাশ্মিরে ব্যাপক সংঘর্ষ: নিরাপত্তা বাহিনীর ৩ সদস্যসহ নিহত ১৬

জম্মু-কাশ্মিরের অনন্তনাগ ও সোপিয়ানে তিনটি পৃথক সংঘর্ষে সেনাবাহিনীর ৩ সদস্যসহ ১৬ জন নিহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে ১১ গেরিলা ও ২ বেসামরিক ব্যক্তি রয়েছেন। ওই ঘটনায় রাজ্যে তীব্র উত্তেজনা ও ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

অন্যদিকে, নিরাপত্তা বাহিনী অভিযান চালানোর সময় তাদের বাধা দিতে প্রতিবাদী জনতা বিক্ষোভ প্রদর্শন করায় উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে ৫০ জনেরও বেশি বেসামরিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। অন্য একটি সূত্রে প্রকাশ, ওই ঘটনায় কমপক্ষে একশ’ জনেরও বেশি মানুষ আহত হয়েছেন।

আজ (রোববার)মুখ্যমন্ত্রী মেহেবুবা মুফতি সংঘর্ষে বেসামরিক ব্যক্তি ও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যের হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

আজ বিক্ষোভকারীরা নিরাপত্তা বাহিনীকে লক্ষ্য করে পাথর নিক্ষেপ করলে নিরাপত্তা বাহিনী কাঁদানে গ্যাসের সেল নিক্ষেপসহ পেলেট গানের ছররা গুলিবর্ষণ করে পাল্টা জবাব দেয়। এসময় কমপক্ষে ২৫ বেসামরিক ব্যক্তি পেলেট গানের ছররা গুলিতে আহত হয়েছেন। আহতদের স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে চোখে আঘাত পাওয়া বেশ কয়েকজন তরুণকে উন্নত চিকিৎসার জন্য শ্রীনগর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সংঘর্ষের পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হিসেবে দক্ষিণ কাশ্মিরের সোপিয়ান ও অনন্তনাগ জেলায় ইন্টারনেট পরিসেবা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। অন্যদিকে, শ্রীনগর ও বানিহালের মধ্যে ট্রেন চলাচলও বন্ধ রাখা হয়েছে।

আগামীকাল (সোমবার) সমস্ত স্কুল-কলেজসহ সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে বলে সরকারি ঘোষণা দেয়া হয়েছে। কাশ্মিরের প্রতিরোধ আন্দোলনের নেতারা আজ থেকে দু’দিনের বনধ পালনের ডাক দিয়েছেন।

You Might Also Like