তুরস্ক ও কাতারের ঘাঁটি ছাড়বে না আমেরিকা

আমেরিকার সেন্ট্রাল কমান্ড বলেছে, তারা তুরস্ক ও কাতারে অবস্থিত বিমানঘাঁটি ছাড়বে না। বিমানঘাঁটি ছাড়ার খবর ভিত্তিহীন। সম্প্রতি বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছিল, তুরস্কের ইনজার্লিক ও কাতারের আল-উদিয়াদ বিমানঘাঁটি ত্যাগের প্রস্তুতি নিয়েছে মার্কিন বাহিনী।

এর আগে ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল একজন মার্কিন কমান্ডারের বরাত দিয়ে জানিয়েছিল, আমেরিকা ও তুরস্কের সম্পর্কে উত্তেজনার পরিপ্রেক্ষিতে ইনজার্লিক বিমানঘাঁটিতে মার্কিন সামরিক তৎপরতা বন্ধ রাখা হয়েছে।

তবে তুর্কি উপপ্রধানমন্ত্রী ও মুখপাত্র বাকির বুযদাগও সম্প্রতি জানিয়েছেন, ইনজার্লিক বিমানঘাঁটি থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের খবর ভিত্তিহীন। সেখানে মার্কিন সামরিক তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। ঘাঁটি থেকে মার্কিন বিমানের ওঠানামাও বন্ধ হয় নি।

ইনজার্লিক বিমানঘাঁটিতে বর্তমানে আমেরিকার পাঁচ হাজার সেনা ও ৩৯তম বিমান ইউনিট মোতায়েন রয়েছে। কাতারের আল-উদিয়াদ বিমান ঘাঁটিতে আমেরিকা নিজ দেশের বাইরে সবচেয়ে বেশি সেনা ও অস্ত্র-সরঞ্জাম মোতায়েন রেখেছে । কাতারের রাজধানী দোহা থেকে ৩০ কিলোমিটার পশ্চিমে অবস্থিত ওই ঘাঁটিতে নয় হাজারেরও বেশ মার্কিন সেনা অবস্থান করছে। মোতায়েন রয়েছে আমেরিকার ১০০ সামরিক বিমান।

You Might Also Like