রাখাইনে বৌদ্ধদের পুর্নবাসন করা হচ্ছে

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য থেকে রোহিঙ্গা মুসলমানদের বিতাড়নের পর সেখানে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের পুনর্বাসন করা হয়েছে। শুক্রবার বার্তা সংস্থা এএফপি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, রাখাইনের উত্তরাঞ্চলের যেসব গ্রামে এক সময় মুসলমান রোহিঙ্গাদের বাস ছিল সেখানে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের পুনর্বাসন করা হয়েছে। গ্রামের প্রবেশ পথে বাঁশের মাথায় টানিয়ে রাখা হয়েছে বৌদ্ধদের পতাকা। বাংলাদেশের পালিয়ে আসা রোহিঙ্গারা যাতে আর সেখানে বসতি গড়তে না পারে, সেজন্যই রাখাইনের বিভিন্ন গ্রামে নতুন করে বৌদ্ধদের পুনর্বাসনের জন্য এসব আবাসনের ব্যবস্থা করেছে মিয়ানমার সরকার।

গত বছরের ২৫ আগস্ট থেকে রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু করে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী। সেনাদের হাত থেকে প্রাণে বাঁচতে এ পর্যন্ত প্রায় ৭ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নিয়েছে। জাতিসংঘ ও যুক্তরাষ্ট্র একে জাতিগত নিধন বলে অভিহিত করেছে। গত সপ্তাহে স্যাটেলাইট থেকে পাওয়া ছবি বিশ্লেষণ করে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল জানিয়েছে, মিয়ানমারের সেনারা রোহিঙ্গা গ্রামগুলো বুলডোজার চালিয়ে মিশিয়ে দিয়েছে।

মিয়ানমার’স এনিমি উইদিন: বুদ্ধিস্ট ভায়োলেন্স অ্যান্ড দ্য মেকিং অব দ্য মুসলিম আদার গ্রন্থের লেখক ফ্রান্সিস ওয়াদি বলেছেন,‘আগামী বছরগুলোতে আমি ওইসব গ্রামে আরো বৌদ্ধদের পুনর্বাসন দেখার আশা করছি। এরপর আমরা ভুলে যাব, ওই এলাকাটি কী ছিল। এই মুছে ফেলার ব্যবস্থা শেষ করা হবে।’

You Might Also Like